খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

খাগড়াছড়ি স্টেডিয়ামে সেনাবাহিনীর ১ মিনিটের ঈদ বাজার

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: করোনা পরিস্থিতিতে একের পর এক সেবাধর্মী কার্যক্রম পরিচালনা করে জাতি ধর্ম নির্বিশেষে সকল শ্রেণী-পেশার মানুষের মাঝে আস্থার জায়গা হয়ে উঠেছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়ন। এইতো গত ২০ মে ২০ (বুধবার) এই সেনা রিজিয়নের উদ্যোগে প্রান্তিক কৃষকদের কাছ থেকে নিত্য প্রয়োজনীয় কৃষিজ পণ্য কিনে তা বিনামূল্যে ‘১ মিনিটের বাজার ‘ নামে উদ্যোগের মাধ্যমে তা নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে তুলে দেয়া হয়।
এবার ঈদকে সামনে রেখে তেমনি এক উদ্যোগ নিয়েছে খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়ন। করোনা পরিস্থিতিতে যখন সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষের কাছে ঈদ আয়োজন নিতান্তই এক বিলাসিতার নাম ঠিক তখনই তাদের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য খাগড়াছড়ি স্টেডিয়ামে ব্যাতিক্রমধর্মী ঈদ বাজারের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী।
বাজার ঘুরে দেখা যায়, পাহাড়ে বসবাসরত নিম্ন আয়ের মানুষেরা বিনামূল্যে শাড়ি, লুংগি, চাল, আটা, তেল, চিনি, লবণ, ডাল, সুজি, বিস্কিট, গুড়া দুধ, লাচ্ছা সেমাই, আলু, পুই শাক, মিষ্টি কুমড়া, চিচিঙ্গার মত সকল প্রয়োজনীয় সামগ্রী সংগ্রহ করছেন নির্বিঘ্নে এবং বিনামূল্যে।
এই কার্যক্রম চলাকালীন ছিল না কোন অব্যবস্থাপনা, বিশৃঙ্খলা। যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি এবং সামাজিক দূরত্ব মেনেই সবাই যার যার মত ঈদ সামগ্রী নিয়ে গেছেন। খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়নের সার্বিক তত্ত্বাবধানে খাগড়াছড়ি সেনা জোন এই উদ্যোগটি আয়োজন ও পরিচালনা করে। খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়ন কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা জানান,
প্রতিটি সেনাসদস্য তাঁদের নিজেদের ঈদ আনন্দ এই গরীব ও অসহায় মানুষদের মাঝে খুঁজে নিতে চান বলেই তাঁদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস। আর এই উদ্যোগের আরও একটি চমকপ্রদ বিষয় হলো, এই ঈদ উপহারের সাথে দেয়া প্রতিটি সবজি এই রিজিয়নের আওতাধীন পানছড়ি উপজেলার প্রান্তিক চাষীদের কাছ থেকে ন্যায্য মূল্যে কিনে আনা হয়েছে। তাতে একদিকে যেমন লাভবান হচ্ছে প্রান্তিক কৃষক যারা করোনা পরিস্থিতিতে ন্যায্য মূল্যে উৎপাদিত কৃষিজ পণ্য বিক্রি করতে পারছে না তেমনি সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষের মুখে ঈদের হাসি ফোটানো সম্ভব হয়েছে।
সাধারণ মানুষ বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর এমন আয়োজনে তাদের ভালবাসা ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন বাহিনীর সকল সদস্যের প্রতি। এলাকাবাসী জানান, খাগড়াছড়ি সেনা রিজিয়ন বরাবরই তাদের সকল বিপদ আপদে পাশে থেকেছে। এই দুঃসময়ে সাধারণ নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে ঈদ আনন্দ তুলে দেওয়ার জন্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর প্রতি তাদের ভালবাসা যেন আরও বাড়িয়ে তুলেছে।