খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদরাঙ্গামাটি সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

খাগড়াছড়ি ও রাঙ্গামাটিতে ২ দিনে ৩ জন নিহত, ১জনকে কুপিয়ে যখম

ডেস্ক রিপোর্ট: খাগড়াছড়ি ও রাঙ্গামাটিতে প্রতিপক্ষের গুলিতে ৩ জন নিহত হয়েছে। ১৫ এপ্রিল রবিবার  রাঙ্গামাটি খাগড়াছড়ি সীমান্তে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসীর গুলিতে তপন চাকমা ও বিজয় চাকমা নামে ২ ইউপিডিএফ কর্মী নিহত হয়। এদিকে  ১৬ এপ্রিল সোমবার বিকালে খাগড়াছড়ির পেরাছড়া এলাকায় সূর্য বিকাশ চাকমা নামে আরো ১ জন নিহত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানায়,  রাঙ্গামাটিস্থ বাঘাইছড়ি উপজেলার সাজেক ইউনিয়নের মারিশ্যা-দীঘিনালা সড়কের জোড়া ব্রিজ এলাকায় ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট’র (ইউপিডিএফ) কর্মী তপন চাকমাকে (৪০) গুলি করে হত্যা করে তাদের প্রতিপক্ষ।

অপরদিকে রাঙ্গামাটি-খাগড়াছড়ি সীমান্তবর্তী বাঘাইছড়ি উপজেলার মারিশ্যা-দীঘিনালা সড়কের ৮-৯ কিলো নামক স্থানে ইউপিএিফ’র আরেক কর্মী বিজয় চাকমাকে (৩২) হত্যা করেছে তাদের প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসী গ্রুপ। এ ঘটনাটির এলাকা নিশ্চিত করার জন্য খাগড়াছড়িস্থ দীঘীনালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: সামসুদ্দীন এবং রাঙামাটিস্থ বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমির হোসেন’র সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা উভয়ই ঘটনাটি একে অপরের এলাকায় বলে দাবি করেন।

এদিকে খাগড়াছড়ি সদরের আপার পেরাছড়া এলাকায় দূর্বৃত্তের গুলিতে সূর্য বিকাশ চাকমা নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে। বিকাল সাড়ে ৪ টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। তার কোন রাজনৈতিক পরিচয় পাওয়া যায়নি। তাকে কে বা কারা হত্যা করেছে তাও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। বিকাল ৫টার দিকে পুলিশ ওই এলাকার জনৈক দয়াল কুমার চাকমার বাড়ির উঠান থেকে সূর্য বিকাশ চাকমার লাশ উদ্বার করেছে। জানা গেছে, তিনি ওই বাড়িতে নিমন্ত্রন খাচ্ছিলেন। ডেকে নিয়ে কাছ থেকে গুলি হত্যা করা হয়। সূর্য বিকাশ চাকমা গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে জেলা সদরের কমলছড়ি ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছিলেন।  স্থানীয়ভাবে সে আঞ্চলিক রাজনৈতিক দল ইউপিডিএফ কর্মী হিসেবে পরিচিত হলেও ইউপিএিফ’র জেলা সংগঠন মাইকলে চাকমার মৃত্যুর পর তার রাজনৈতিক পরিচয় নিশ্চিত করেননি। তাকে কে বা কারা, কি কারনে তাকে হত্যা করেছে তাও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। স্থানীয়রা জানান, তারা পর পর দুই রাউন্ড গুলির শব্দ শুনেছেন। খুব কাছ থেকে গুলি করে তাকে হত্যা করা হয়েছে। আপার পেরাছড়া গ্রামের মৃত ফনিভুষন চাকমার ছেলে সূর্য বিকাশ চাকমা জেলা শহরের স্লইস গেইট এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতো বলে জানাগেছে।তার স্ত্রী রিপনা চাকমা জানান, সর্বশেষ দুপুর ২টায় তার সাথে কথা হয়েছে। এ সময় তাকে নিমন্ত্রন খেতে যাওয়ার কথা জানিয়েছিলেন। খবর পেয়ে খাগড়াছড়ির পুলিশ সুপার আলী আহম্মদ খানসহ পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। খাগড়াছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পেয়ার আহম্মদ জানান, লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

অন্যদিকে দুপুর দেঢ়টার দিকে খাগড়াছড়ি জেলার পানছড়ি কলেজে ইউপিডিএফ সমর্থিত পাহাড়ী ছাত্র পরিষদের কলেজ শাখার সদস্য ও এইচএসসি পরীক্ষার্থী বাবু চাকমাকে প্রতিপক্ষের সশস্ত্র দুর্বত্তরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করেছে। এ ঘটনার জন্য তাদের রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ জনসংহতি সমিতি (এম এন লারমা) গ্রুপকে দায়ী করেছে পাহাড়ী ছাত্র পরিষদ।