নানিয়ারচরপাহাড়ের সংবাদরাঙ্গামাটি সংবাদ

১৬ গ্রামবাসীকে অপহরণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও অবরোধ ঘোষণা

ডেস্ক রিপোর্ট: রাঙামাটির নান্যাচর উপজেলার বুড়িঘাট ইউনিয়নের হাতিমারা মুখ এলাকা থেকে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের গ্রাম প্রধানসহ ১৬ জন নিরীহ গ্রামবাসীকে সংস্কারবাদী জেএসএস ও নব্য মুখোশাহিনী কর্তৃক অপহরণের প্রতিবাদে আগামীকাল সোমবার (৯ জুলাই) নান্যাচরের ঘিলাছড়িতে সকাল ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত মানববন্ধন ও মঙ্গলবার (১০ জুলাই) নান্যাচর উপজেলায় সকাল-সন্ধ্যা সড়ক ও নৌপথ অবরোধের ডাক দিয়েছে নব্য মুখোশ বাহিনী প্রতিরোধ কমিটি। নব্য মুখোশ বাহিনী প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব পরাণধন চাকমা সাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। উক্ত অপহরণ ঘটনায় ‘নব্য মুখোশ বাহিনী প্রতিরোধ কমিটি’র আহ্বায়ক জ্যোতি লাল চাকমা তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

সংবাদ মাধ্যমে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করে তিনি বলেন, মুখোশ বাহিনী ও সংস্কারবাদী জেএসএস-এর হাতে গোটা নান্যাচরবাসী জিম্মি হয়ে পড়েছে। দিন দুপুরে গণহারে ১৬ জন গ্রামবাসীকে অপহরণের পরও প্রশাসনের কোন তৎপরতা দেখা যাচ্ছে না। অপহরণকারী সন্ত্রাসীরা নান্যাচর সদরে প্রশাসনের নাকের ডগায় অবস্থান করলেও তাদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থাও নেয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ করেন তিনি। তিনি অপহরণের প্রতিবাদে ঘোষিত মানববন্ধন ও অবরোধ কর্মসূচি সফল করতে এলাকাবাসীর কাছে সর্বাত্মক সহযোগিতা কামনা করেছেন।

উল্লেখ্য, আজ রবিবার (৮ জুলাই) সকাল সাড়ে ৭টার দিকে নান্যাচর উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন কুদুকছড়ি বাজারে যাচ্ছিলেন। যাবার পথে বুড়িঘাট ইউনিয়নের হাতিমার মুখ নামক স্থানে সংস্কারবাদী জেএসএস ও মুখোশ বাহিনীর সশস্ত্র দুর্বৃত্তরা লোকজনকে বহনকারী ইঞ্জিন চালিত নৌকা থামিয়ে বিভিন্ন গ্রামের প্রায় ২৫ জন সাধারণ গ্রামবাসীকে অস্ত্রের মুখে নামিয়ে রাখে। পরে সেখান থেকে ৯ জনকে ছেড়ে দিয়ে বাকী ১৬ জনকে অপহরণ করে উপজেলার বড়াদাম নামক গ্রামের দিকে যায়। এখনো তাদের কাউকে ছেড়ে দেয়া হয়নি।