চট্টগ্রাম সংবাদরাঙ্গুনিয়াশিরোনামস্লাইড নিউজ

রাঙ্গুনিয়া মূর্তি ভাংচুরের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার হয়নি কেউ

শান্তি রঞ্জন চাকমা, রাঙ্গুনিয়: রাঙ্গুনিয়ার শান্তি নিকেতন এলাকায় ৫টি মূর্তি ভাংচুরের ঘটনায় মুল হোতা মো. নাজিম উদ্দিনকে রাঙ্গুনিয়া থানা পুলিশ গ্রেপ্তার করতে পারেনি। দু’দিন অতিবাহিত হলেও মুল হামলাকারী এখানো গ্রেপ্তার না হওয়ায় হিন্দু সম্প্রাদায়ের মাঝে নানা বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টা মামলার তদন্তকারী রাঙ্গুনিয়া থানার এসআই পীযুশ সিংহ বলেন, আসামীকে গ্রেপ্তারের জোর প্রচেষ্ঠা চলছে।

জানা যায়, উপজেলার স্বনির্ভর রাঙ্গুনিয়া ইউনিয়য়নের শান্তি নিকেতন গ্রামের গৌরাঙ্গ আচার্য্য বিশ্ব কর্মা উপলক্ষে ৩টি বিশ্বকর্মা মূর্তি ও ২টি গনেশ মূতি বানিয়েছেন। এসব মূর্তি তৈরী করে গৌরাঙ্গ আচার্য্য বিক্রি করেন।

সোমবার দুপুরে দিকে তাঁর মূর্তির দোকান বন্ধ করে খাবার খেতে যান। দুপুর ২ টার দিকে তিনি দেখতে পান তার দোকানের পিছনের বেড়া ভেঙ্গে মৃত মনজুর আসমের জনৈক পুত্র মো. নাজিম উদ্দিন পালাচ্ছেন। এসময় দোকান খুলে দেখেন ৩টি বিশ্বকর্মা মূর্তি ও ২ টি গনেশ মূর্তি ভাঙ্গা। গৌরাঙ্গ আচার্য্য বলেন, দীর্ঘদিন ধরে নাজিম উদ্দিন চাঁদা দাবী করে আসছে। টাকা না পেয়ে সে মূর্তি ভাংচুর করে। রাঙ্গুনিয়া থানার এসআই পীযুশ সিংহ বলেন, মূর্তি ভাংচুরের ঘটনায় নাজিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।