Tuesday , 14 August 2018
লামায় ৭ইউনিয়নের মধ্যে ৫টি আওয়ামীলীগ বিএনপি ২টিতে বিজয়ী

লামায় ৭ইউনিয়নের মধ্যে ৫টি আওয়ামীলীগ বিএনপি ২টিতে বিজয়ী

লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি: বান্দরবানের লামায় ৭ ইউনিয়নের মধ্যে ৫টিতে আওয়ামী লীগ ও ২টিতে বিএনপি’র চেয়ারম্যান প্রার্থী বিজয়ী হয়েছেন। বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনার মধ্যেদিয়ে গত শনিবার ৭টি ইউনিয়নের নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। নির্বাচন শেষে রিটার্নিং অফিসারগণ বেসরকারিভাবে ফলাফল ঘোষনা করেন।

ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী গজালিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী বাথোয়াইচিং মার্মাকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষনা করা হয়। এ ইউনিয়নের মোট ভোটারের সংখ্যা ৬৩৪৪। এখানে বাথোয়াইচিং মার্মা পেয়েছেন ৩১০২ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি বিএনপি প্রার্থী মংক্যচিং চৌধুরী পেয়েছেন ১৩৪৩ ভোট।

লামা সদর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মিন্টু কুমার সেনকে  তার  নিকতম প্রতিদ্বন্দি বিএনপির প্রার্থী মোঃ রবিউল হোসেন ভুইয়ার চেয়ে ১৬৫৪ ভোট বেশী পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষনা করা হয়। এখানে মোট ভোটারের সংখ্যা ৫০৪৮। তারমধ্যে মিন্টু কুমার সেন পেয়েছেন ৩০০৫ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি রবিউল হোসেন ভুঁইয়া পেয়েছেন১৩৫১ ভোট।
ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নে বিএনপির প্রার্থী মোঃ জাকের হোসেন মজুমদার আওয়ামী লীগ প্রার্থী খায়রুল বশরের চেয়ে ৫২১ ভোট বেশী পেয়ে বিজয়ী ঘোষিত হন। এ ইউনিয়নের মোট ভোটারের সংখ্যা ১৩৮৩৩। তারমধ্যে জাকের হোসেন মজুমদার পেয়েছেন ৫৫৯৯ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি খায়রুল বশর পেয়েছেন ৫০৭৮ ভোট।

আজিজনগর ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ প্রার্থী মোঃ জসীম উদ্দিন পেয়েছেন ২৭৫৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি বিএনপি প্রার্থী নাজেমুল ইসলাম পেয়েছেন ১১৫৩ ভোট। এ ইউনিয়নের মোট ভোটারের সংখ্যা ৬৪৭০। তারমধ্যে জসিমউদ্দিন নাজেমুল ইসলামের চেয়ে ১৬০২ ভোট বেশী পাওয়ায় বিজয়ী ঘোষিত হন।

সরই ইউনিয়নে বিএনপি প্রার্থী মোঃ ফরিদুল আলম পেয়েছেন ১৯৬৭ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি আওয়ামী লীগের প্রার্থী মোঃ নুরুল আলম পেয়েছেন ১৪০২ ভোট। সরই ইউনিয়নের মোট ভোটারের সংখ্যা ৫৯৬৮। বিএনপি প্রার্থী ফরিদুল আলমকে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোঃ নুরুল আলমের চেয়ে ৫৬৫ ভোট বেশী পাওয়ায় বিজয়ী ঘোষনা করা হয়।
রুপসীপাড়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ছাচিংপ্রু মার্মাকে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি বিএনপি প্রার্থী রফিকুল ইসলামের চেয়ে ১৬৮৯ ভোট বেশী পেয়ে বিজয়ী ঘোষনা করা হয়। এ ইউনিয়নের মোট ভোটারের সংখ্যা ৬৯২৭। তারমধ্যে ছাচিংপ্রু মার্মা পেয়েছেন ২৯৯৬ ভোট, রফিকুল ইসলাম পেয়েছেন ১৩০৭ ভোট।
ফাইতং ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোঃ জালাল উদ্দিন পেয়েছেন ৩১১৬ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধি বিএনপি শামসুল আলম পেয়েছেন ২০১০ ভোট। এ ইউনিয়নের মোট ভোটের সংখ্যা ৭১৫৪।  মোঃ জালাল উদ্দিন শামসুল আলমের চেয়ে ১১০৬ ভোট বেশী পেয়ে নির্বাচিত হন।

এ দিন রাত পৌনে বারটায় রিটার্ণিং অফিসার মোঃ শাহীনেওয়াজ, মোঃ আনোয়ার কামাল ও কাজী সফিকুর রহমান উপজেলার ৭টি ইউপির ভোট গণনা শেষে ফলাফল ঘোষনা করেন। নির্বাচন চলা কালে বিচ্ছিন্ন ঘটনায় পুলিশের ছোড়া ফাঁকা বন্দুকের গুলিতে লামা সদর ইউপির ২নং ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থীর আব্দুর রহিমের ভাই মোঃ ইব্রাহিম আহত হন। এ ছাড়াও আজিজনগর ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রথর্িী জসীমউদ্দিনের হাতে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী নুরুচ্ছফা মাষ্টার রক্তাক্ত আহত হন। সেই সাথে ফাইতং ইউনিয়নের হেডম্যানপাড়া কেন্দ্রে, ফাসিয়াখালী ইউনিয়নের অংলারীপাড়া কেন্দ্রে বিচ্ছিন্ন ভাবে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনায় ২ মহিলা ভোটার সহ ১৫ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

Share This:

Leave a Reply

BIGTheme.net • Free Website Templates - Downlaod Full Themes