খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদমাটিরাঙ্গাশিরোনামস্লাইড নিউজ

কনকনে শীতের রাতে কম্বল দিতে গ্রামে ছুটে গেলেন মাটিরাঙ্গার ইউএনও

নুরনবী অন্তর মাহমুদ, মাটিরাঙ্গা: পাহাড়ী জনপদেও জেঁকে বসেছে কনকনে শীত। শীতবস্ত্রের অভাবে দু:স্থ ও অসহায় মানুষগুলো যখন উষ্ণতার পরশ খুজে ফিরছে, কনকনে শীতের প্রভাবে দুর্গম পাহাড়ের জনজীবন যখন বিপর্জস্থ তখন তাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ ।

সোমবার (১৪ জানুয়ারি) সারাদিন দাপ্তরিক কাজে ব্যস্ত থাকার পর সবাই যখন বিশ্রাম নিতে আপন নিবাসে অবস্থান করছিলেন, ঠিক সে সময় মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ সহকর্মী ও সাংবাদিকদের নিয়ে ছুটে গেছেন অসহায় শীতার্তদের মাঝে কম্বল পৌঁছে দিতে।

রাতের আধাঁরে হঠাৎ নিজের গ্রামে ইউএনও’র হাত থেকে কম্বল পেয়ে খুশি পাহাড়ী জনপদ মাটিরাঙ্গা পৌরসভার পিছিয়ে পড়া আলুটিলা ১নং ওয়ার্ডের মানুষ। কম্বল হাতে পেয়ে হাজেরা বেগম সৃষ্টিকর্তার কাছে ইউএনও এর দীর্ঘায়ু কামনা করে এ প্রতিবেদনকে বলেন, ঠান্ডায় যহন কষ্ট পাইতাছিলাম স্যার হঠাৎ আইয়্যা আমাগো কম্বল দিয়া কষ্ট থাইক্যা বাচাইলো। এইডা আমাগো লাহান গরীব মাইসের কাছে সারাজীবন মনে থাকবো। এই রহম কইর‌্যা আমাগো কবর কেউ কোনদিন লয়নাই।

স্থানীয় বাসিন্দা শামীম রেজা জানান, আলুটিলায় এ প্রথম কোন রকম পরিকল্পনা ছাড়াই মফস্বল এলাকায় এসে কোন সরকারি কর্মকর্তা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর থেকে আসা কম্বল নিজের হাতে জড়িয়ে দিয়েছেন শীতার্ত মানষের গায়ে।