খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদরামগড়শিরোনামস্লাইড নিউজ

রামগড়ে উপজেলা আ.লীগের কাউন্সিলঃ সভাপতি মোস্তফা হোসেন, সম্পাদক আলমগীর

রতন বৈষ্ণব ত্রিপুরা: গণতন্ত্রের চর্চা, সমাজে শান্তি প্রতিষ্ঠা ও দেশব্যপী যে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রয়েছে তা শুধুমাত্র আওয়ামীলীগের রাজনীতিতেই সম্ভব মন্তব্য করে প্রধান অতিথি স্থানীয় সাংসদ- উপজাতীয় শরনার্থী বিষয়ক ট্রাস্কর্ফোসের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি বলেন, আওয়ামীলীগ রাষ্ট্রিয় ক্ষমতায় আসার পর অত্র এলাকার শিক্ষা, যোগাযোগ ও বিদ্যুতায়ন সহ সকল ক্ষেত্রে যে উন্নয়ন সাধিত হয়েছে তা নি:সন্দেহে প্রশংসার দাবী রাখে। তিনি দেশের চলমান উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে নেতা কর্মীদের মিলেমিশে দেশের উন্নয়নে কাজ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নত বাংলাদেশ ও বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলাদেশ গড়ার আহ্বান জানান।

৩০ অক্টোবর বুধবার সকাল ১১টায় রামগড় পর্যটন লেক পাড়স্থ বিজয় ভাস্কর্যের সামনে আয়োজিত রামগড় উপজেলা আ’লীগের ত্রি-বার্ষিক কাউন্সিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

জেলা আওয়ামীলীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক মংসুইপ্রু চৌধুরী অপুর সঞ্চালনায় রামগড় উপজেলা আ’লীগের ত্রি-বার্ষিক কাউন্সিল প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক-সাবেক উপজেলা আ’লীগ আহবায়ক ও ১নং ইউপি চেয়ারম্যান মো: শাহআলম মজুমদার সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, জেলা আ’লীগের উপদেষ্টা ও সাবেক সাংসদ একেএম আলীম উল্যাহ, জেলা আ’লীগের সহ সভাপতি কল্যাণ মিত্র বড়ুয়া,জেলা আ’লীগের সহ সভাপতি ও সাবেক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান চাইথো অং মারমা, জেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক নির্মলেন্দু চৌধুরী, জেলা পরিষদ সদস্য আবদুর জব্বার, মাটিরাঙ্গা পৌর মেয়র শামসুল আলম, রমাগড় উপজেলা চেয়ারম্যান বিশ্ব প্রদীপ ত্রিপুরা, গুইমারা উপজেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক মেমং মারমা, নব ঘোষিত সাধারন সম্পাদক কাজী নুরুল আলম আলমগীরসহ প্রমুখ।

পরে তিনি উপস্থিত উন্মূক্ত সম্মেলনে উপজেলার সকল কাউন্সিলরদের প্রস্তাব সমর্থনের মতামতের ভিক্তিতে আগামী ৩ বছরের জন্য ৭১ সদস্য বিশিষ্ট উপজেলা কমিটিতে মো: মোস্তফা হোসেনকে সভাপতি ও কাজী নুরুল আলম আলমগীরকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করেন। এর আগে প্রধান অতিথি ও দলীয় জেলা উপজেলার নেত্রীবৃন্দ জাতীয় ও দলীয় পতাকা এবং শান্তির প্রতীক পায়রা উড়িয়ে ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের শুভ উদ্বোধন করেন।