খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

শুরু হলো খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুলের পথচলা

স্টাফ রিপোর্টার: কোভিড-১৯ এর মাঝেও শিক্ষা কার্যক্রম অব্যাহত রাখার লক্ষ্যে খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুলের পথ চলা শুরু হয়েছে। ২৩মে শনিবার সকাল ১১টায় চট্টগ্রাম টিচার্স ট্রেনিং কলেজের সহযোগী অধ্যাপক আকতার হোসেন কুতুবী খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুলের উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

এসময় তিনি বলেন, আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর পরশ মামুদ ও রুপা মল্লিক রুপুর প্রচেষ্ঠায় খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুলের পথ চলা শুরু হয়েছে। মহামারী করোনার মাঝে পাহাড়ি জনপদে শিক্ষা কার্যক্রম অব্যাহত রাখার উদ্যোগকে তিনি স্বাগত জানান।

আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর মাকসুদা আক্তার, মংসাউ মারমা, রোমানা আফরোজ, উদয় শংকর মল্লিক, মোঃ শাহজাহান, ফাতেমা আক্তার, আক্তার হোসেন এবং বিনয় বিকাশ চাকমার মতো আলোকিত শিক্ষকেরা শ্রেণি কার্যক্রম পরিচালনা করার মাধ্যমে পাহাড়ে আলো ছড়াবেন এমনটিই তিনি প্রত্যাশা করেন।

এই মহতি প্রচেষ্ঠায় সম্পৃক্ত সকলকে ধন্যবাদ জ্ঞাপনের পাশাপাশি তিনি জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা অফিসার ও উপজেলা শিক্ষা অফিসারসহ শিক্ষা-সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুল পেজের উদ্বোধনের পর পঞ্চম শ্রেণির ইংরেজি বিষয়ের উপর ক্লাশ নেন খাগড়াছড়ি সদরের টিএন্ডটি গেইট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা, আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর ও দু’বারের সেরা কন্টেন্ট নির্মাতা রূপা মল্লিক রুপু।

এর পর একই শ্রেণির বৌদ্ধ ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা বিষয়ে ক্লাশ নেন মানিকছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর বিনয় বিকাশ চাকমা, বাংলা বিষয়ের উপর ক্লাশ নেন লক্ষ্মীছড়ি উপজেরার জারুলছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক, প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলো হতে প্রথম আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর, সেরা কন্টেন্ট নির্মাতা ও খাগড়াছড়ি অনলাইন স্কুলের এডমিন পরশ মামুদ এবং প্রাক-প্রাথমিক শ্রেণির মারমা মাতৃভাষায় ক্লাশ নেন খাগড়াছড়ি মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডর মংসাউ মারমা। পর্যায়ক্রমে আইসিটি4E জেলা অ্যাম্বেসেডরগণ বিভিন্ন শ্রেণির শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করবেন বলে জানা গেছে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ফাতেমা মেহের ইয়াসমিন শিক্ষকদের এই প্রচেষ্ঠাকে স্বাগত জানান। তিনি বলেন, চলমান মহামারী করোনার মাঝেও শিক্ষা কার্যক্রম অনলাইনের মাধ্যমে পরিচালনা করে, শিক্ষকেরা সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশের স্বপ্নকে যেমন পূরণ করছে, তেমনি শিক্ষার আলোও ঘরে ঘরে পৌঁছে দিচ্ছে। যতদিন বিরাজমান পরিস্থিতি থাকে, ততদিন অনলাইন স্কুলের মাধ্যমে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার ধারা অব্যাহত রাখার আশাবাদ ব্যক্ত করে তিনি সকল ধরণের সহযোগিতা প্রদানের আশ্বাস দেন।