চট্টগ্রাম সংবাদধর্ম ও জীবনশিরোনামস্লাইড নিউজ

হাজারো ভক্তের অংশগ্রহণে ওরশ শরীফের আখেরী মুনাজাত অনুষ্ঠিত

ডেস্ক রিপোর্ট: আওলাদে রাসূল (দ.) শায়খুল ইসলাম হযরত শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী আল্-মাইজভাণ্ডারীর (ক.) ৮ম বার্ষিক ওরশ শরীফ দেশ-বিদেশ থেকে আসা হাজার-হাজার ভক্ত জনতার অংশগ্রহণে আজ ২৭ আগস্ট-২০১৯, মঙ্গলবার, মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফে পালিত হয়েছে। বিশ্বের নির্যাতিত নিপীড়িত বঞ্চিত অধিকারহারা মানুষের পরিত্রাণে সকল দেশ ও বিশ্ব নেতৃবৃন্দকে এগিয়ে আসার আহ্বানে পালিত হলো মাইজভাণ্ডারী মহাত্মার এ বার্ষিক ওরশ শরীফ। ওরশ শরীফ উপলক্ষে মাইজভাণ্ডার শরীফে রহমানিয়া মইনীয়া মাদ্রাসার বিশাল ময়দানে আয়োজিত মাহফিলে সভাপতিত্ব করেন মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন রাহবারে শরিয়ত ও ত্বরীকত হযরত শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী (মা.জি.আ.)।

তিনি বলেন, নিপীড়িত অসহায় অধিকারহারা মানুষের ঠিকানা হচ্ছে আল্লাহর নৈকট্যধন্য আউলিয়ায়ে কেরাম। আল্লাহর ওলীগণ নিপীড়িত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে তাদেরকে সাহস ও শক্তি জুগিয়ে থাকেন। তেমনি বিশ্বের নিপীড়িত বঞ্চিত মজলুম মানুষের আশা-ভরসার ঠিকানা হচ্ছেন শাহ্সূফী সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী (ক.)। সহিংসপ্রবণ এ বিশ্বে একটি মানবিক সম্প্রীতিময় বিশ্ব গড়ার স্বপ্নই তিনি দেখতেন। মানুষে মানুষে বিভেদ, অনৈক্য ও হানাহানি দেখে তিনি খুবই কষ্ট পেতেন। দেশে দেশে চলা সংঘাত সহিংসতা তাঁকে অত্যন্ত বিচলিত করতো। তাই, ইসলামের শান্তি, সম্প্রীতি, উদারতা ও সহমর্মিতার আলোকে দেশ ও বিশ্বে শান্তির আবহ তৈরি করার পথনির্দেশনায় তিনি জীবনভর দিশারীর ভূমিকায় ছিলেন। আজকের সংঘাতজর্জর যুদ্ধপীড়িত বিশ্বে শান্তির আবহ ফিরিয়ে আনতে মাইজভাণ্ডারী মহাত্মাদের দেখানো পথে আমাদের চলতে হবে।

হিংসা, বিদ্বেষ অনৈক্য ভুলে সবাইকে শান্তির প্লাটফরমে আসার আহ্বান জানান সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী। তিনি বলেন, সিরিয়া ইয়েমেন কাশ্মীরে আজ নিরীহ মানবতার আর্তনাদ শোনা যায়। নিপীড়িত মানুষের পাশে আজ কেউ নেই। আউলিয়ায়ে কেরামের প্রদর্শিত সর্বজনীন মানবপ্রেম ও ভালোবাসার বাণী দেশে দেশে ছড়িয়ে দিয়ে বিশ্বকে রাহুগ্রাস মুক্ত করার তাগিদ দেন তিনি। ওরশ মাহফিলে বিশেষ অতিথি ছিলেনÑ শাহজাদায়ে গাউছুল আ’যম আলহাজ্ব সৈয়দ মাশুক-এ-মইনুদ্দীন আল্-হাসানী (মা.জি.আ.), শাহজাদায়ে গাউছুল আ’যম আলহাজ্ব সৈয়দ হাসনাইন-এ-মইনুদ্দীন আল্-হাসানী (মা.জি.আ.)। হযরত মাওলানা বাকের আনসারীর পরিচালনায় ওরশ মাহফিলে অতিথি ও আলোচক ছিলেনÑ হযরত সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ মাইজভাণ্ডারী ট্রাস্টের মহাসচিব এড. কাজী মহসীন চৌধুরী, আন্জুমান কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক খলিফা শাহ্ মো: আলমগীর খান, খলিফা আব্দুল মান্নান, হযরত মাওলানা মুফতী বাকি বিল্লাহ আল্-আযহারী, আন্জুমান কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি খলিফা আলহাজ্ব কবির চৌধুরী, খলিফা হযরত মাওলানা রুহুল আমীন ভূঁইয়া চাঁদুপরী, শাহ্ মোহাম্মদ ইব্রাহিম মিয়া, মইনীয়া ওলামা মাশায়েখ ফোরামের চট্টগ্রাম জেলার আহ্বায়ক হযরত মাওলানা ইসমাইল হোসেন সিরাজী, এইচ এম মাকসুদুর রহমান, আন্জুমান চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি খলিফা আল্হাজ্ব বোরহান উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ইউছুফ রেযা মিন্টু, দক্ষিণ জেলা সাধারণ সম্পাদক খলিফা কাজী মো: শহীদুল্লাহ, সিঙ্গাপুর আন্জুমান সভাপতি খলিফা শাহ মোঃ মোতাহের হোসেন প্রমুখ।

মিলাদ কিয়াম শেষে মুসলিম উম্মাহর শান্তি-সমৃদ্ধি-কল্যাণ, বিশ্বের নিপীড়িত মানবতার পরিত্রাণ কামনায় মুনাজাত পরিচালনা করেন হযরত শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী (মা.জি.আ)। পরে সবার মাঝে তবরুক পরিবেশিত হয়।