খাগড়াছড়িতে ইয়োগা বিষয়ক সেমিনার

 খাগড়াছড়িতে ইয়োগা বিষয়ক সেমিনার

স্টফ রিপোর্টার: “যোগ ব্যায়াম আমাদের প্রত্যেকের পক্ষে করা সম্ভব, আসুন আমরা এটিকে আরও ভাল জীবনের জন্য আলিঙ্গন করি” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে উপর ইয়োগা বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২২সেপ্টেম্বর শুক্রবার বিকাল ৫টায় জেলা শহরের মিলনপুরস্থ রৌরাং নৌক এর খাগড়াছড়ি ইয়োগা সেন্টারে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।

সেমিনারে বিশিষ্ট ঠিকাদার ও বিশিষ্ট সমাজসেবক এস অনন্ত বিকাশ ত্রিপুরা’র সভাপতিত্বে যোগ ব্যায়াম (ইয়োগা) উপকারিতা সম্পর্কে বিশদভাবে ধারণা প্রদান ও উপস্থাপন করেন ইন্ডিয়া হাই কমিশনার এর সাবেক ইয়োগা শিক্ষক ডা. চিরনজিৎ ত্রিপুরা। সেমিনারের সার্বিক ব্যবস্থাপনা ও সঞ্চালনা করেন সোনালী ব্যাংক’র খাগড়াছড়ি শাখা’র ব্যবস্থাপক সমর কান্তি ত্রিপুরা।

সেমিনারে অতিথিরা বলেন, ইয়োগা (যোগব্যায়াম) কেবল আমাদের শারীরিকভাবে সুস্থ রাখবে না, মানসিকভাবেও রাখবে স্বস্তিতে। শারিরীক ও মানসিক সুস্থতার জন্য ইয়োগা (যোগব্যায়াম) খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।আত্মার সঙ্গে বিশ্বব্রহ্মাণ্ডের সংযোগ তৈরি করে আত্নিক প্রশান্তি দেওয়াই যোগব্যায়ামের মূল উদ্দেশ্য। সুস্থ থাকতে চাইলে মানুষের দেহের সঙ্গে মানুষের মনের সংযোগ যেমন জরুরি, তেমনি জরুরি শক্তির সঙ্গে মেলবন্ধনও। আর ইয়োগা ঠিক এই কাজটাই করে। মানসিক চাপ বা উদ্বেগ অসংখ্য রোগের অন্যতম প্রধান কারণ। ডায়াবেটিস, হৃদরোগের মতো রোগ হতে পারে দীর্ঘমেয়াদি স্ট্রেসের কারণে। স্ট্রেস কমিয়ে দেয় আমাদের আয়ুও। মানসিক চাপ থেকে দূরে থাকতে সাহায্য করে ইয়োগা। যোগানুশীলনের ধারাবাহিকতায় আমাদের অস্থির মন ধীরে ধীরে চিন্তামুক্ত ও শান্ত হয়ে পড়ে, তখন আমরা উপলব্ধি করি আমাদের আত্নাকে। এতে আমাদের মন নির্মল থাকে, আমরা শক্তি পাই। আমাদের মনোযোগ ও ভারসাম্য বাড়ে। ঘুমের সমস্যা থাকলে সেটাও দূর হয়। বেশকিছু শারীরিক উপকারিতাও রয়েছে যোগব্যায়ামের। মাংসপেশি শক্তিশালী করতে সাহায্য করে ইয়োগা। এছাড়া ফুসফুস ভালো রাখা, রক্ত সঞ্চালন ও শ্বসন প্রক্রিয়ার উন্নতি সাধন, পেটের মেদ কমানোসহ আরও যোগব্যায়ামের অসংখ্য উপকারিতা রয়েছে বলে জানান বক্তারা।

এছাড়াও ইয়োগার বিভিন্ন বিষয়ে মুক্ত আলোচনা ও প্রশ্নোত্তর পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। সেমিনার শেষে যোগব্যায়ামের বিভিন্ন ধরনের শারিরীক কসরত ও প্র্যাকটিক্যালিভাবে দেখানো হয়।

এ সময় জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) মো: জসিম উদ্দীন, জেলা তথ্য অফিসার বাপ্পী চক্রবর্তী, জেলা ক্রীড়া অফিসার মো: আফাজ উদ্দিন, কুজেন্দ্র-মল্লিকা স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাধন ত্রিপুরা, জেলা সহকারী প্রশাসনিক কর্মকর্তা রুবেল কান্তি দে, বাংলাদেশ ত্রিপুরা কল্যাণ সংসদ কেন্দ্রীয় কমিটি’র সহ-সভাপতি সুকান্ত ত্রিপুরা বিবিসুৎ, নারী উদ্যোক্তা শাপলা দেবী ত্রিপুরা, স্মার্ট বিউটি পার্লারের বিউটিশিয়ান ও প্রশিক্ষক সাগরিকা ত্রিপুরা, সোনালী ব্যাংক, খাগড়াছড়ি শাখা’র প্রিন্সিপাল অফিসার প্রিয় রঞ্জন চাকমা, খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা সুদেষ্ণা চাকমা, ইয়োগা প্রশিক্ষক দিনেশ ত্রিপুরা, প্রশিক্ষক জীতেন ত্রিপুরা, প্রশিক্ষক অর্পন বিকাশ ত্রিপুরাসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post