খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

খাগড়াছড়িতে অবরোধ চলাকালে ইউপিডিএফ’র হামলায় তিন পুলিশ আহত

স্টাফ রিপোর্টার: খাগড়াছড়িতে ইউনাইট্রেড পিপলস্ ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ প্রসীত বিকাশ খীসা অংশ) এর কেন্দ্রীয় নেতা মিঠুন চাকমা‘র হত্যাকারীদের আটকের দাবিতে ইউপিডিএফ সকাল সন্ধ্যা অবরোধ চলাকালে পুলিশের সাথে সংঘর্ষ, পুলিশের শর্টগানের গুলি ও চোরাগোপ্তা হামলায় তিনজন পুলিশ আহত হয়েছে। আহতরা হলো, পুলিশের এএসই আবুল হোসেন ও অপর দুই পুলিশ সদস্য সামান্য আহত হয়েছে।
প্রতক্ষ্যদর্শী ও আইন শৃংখ্যলা বাহিনীর সূত্র মতে জানাযায়, অবরোধ চলাকালে সকাল ১০টার দিকে চেঙ্গী ব্রিজ এর খবংপঞ্জ এলাকায় পুলিশ ও পিকেটারদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পুলিশ তিন রাউন্ড শর্টগানের গুলি ছুড়ে পিকেটারদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এ সময় পিকেটারদের ইট-পাটেকেল ও গুলতির আঘাতে এএসই আবুল হোসেনসহ তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়। অপর দিকে সকাল থেকে পিকেটাররা খাগড়াছড়ি-পানছড়ি সড়কে বিভিন্ন স্থানে রাস্তার উপর গাছ কেটে ফেলে সড়ক অবরোধ করে রেখেছে। অবরোধের কারণে আভ্যন্তরীন ও দুর পাল্লা সড়কে সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। আকস্মিক সড়ক অবরোধের কারণে বেকায়দায় পড়েছে শত শত পর্যটক। এছাড়াও জেলার বিভিন্ন স্থানে পর্যটকবাহী গাড়ির উপর পিকেটাররা ঢিল ছোড়ার ঘটনা ঘটে বলে আমাদের উপজেলা প্রতিনিধিরা নিশ্চিত করেছে।
খাগড়াছড়ি পুলিশ সুপার, পিকেটাররা পাহাড়ের উপর খেকে আইন শৃংখ্যলা বাহিনীর উপে চোরাগোপ্ত হামলা চালাচ্ছে উল্লেখ করে বলেন আইন শৃংখ্যলা বাহিনী সতর্ক রয়েছে।
উল্লেখ্য, ৩ জানুয়ারি দুপুরে খাগড়াছড়ি শহরের সুইস গেইট এলাকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে ইউপিডিএফ (প্রসীত বিকাশ খীসা অংশ)‘র কেন্দ্রীয় নেতা মিঠুন চাকমা সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত হয়েছে। ইউপিডিএফ এ হত্যাকাণ্ডের জন্য ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিককে দায়ী করলেও গণতান্ত্রিকরা অস্বীকার করেছে। এঘটনায় এখনো থানায় মামলা করেনি।