খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

খাগড়াছড়ি ইয়েস গ্রুপের নতুন কমিটি গঠন

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: দুর্নীতি প্রতিরোধ ও সুশাসন প্রতিষ্ঠার ব্যাপক চাহিদা সৃষ্টির মাধ্যমে দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলনকে আরও বেগবান করার লক্ষ্যে বিভিন্ন রকমের সচেতনতামূলক কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছে সনাক-খাগড়াছড়ি। তরুণদের মধ্যে দুর্নীতিবিরোধী চেতনা জাগ্রত করার লক্ষ্যে সনাক খাগড়াছড়ির অনুপ্রেরণায় ইয়ূথ এনগেজমেন্ট এন্ড সাপোর্ট (ইয়েস) গ্রুপ গঠন করা হয়।
ইয়েস গ্রুপ দুর্নীতির বিরুদ্ধে জনসচেতনতা তৈরির লক্ষ্যে দুর্নীতিবরোধী বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এছাড়াও দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলনকে সামাজিক আন্দোলনে আরও জোরদার করার লক্ষ্যে সরকারি বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতি হ্রাস, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা বৃদ্ধি, সেবার মানোন্নয়ন, সুবিধাবঞ্চিত নারী-পুরুষের অংশগ্রহণের মাধ্যমে সুশাসন প্রতিষ্ঠা ও টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে।
আজ রবিবার (০৭মে ২০২০খ্রি.) সদ্য সাবেক ইয়েস দলনেতা মো: মেহেদি হাসান সোহাগ’র সভাপতিত্বে ভার্চুয়ালী ভাবে ইয়েস সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে খাগড়াছড়ি ইয়েস গ্রুপের নতুন নেতৃত্ব নির্বাচন করা হয়। এ নির্বাচনে বিপুল ভোট পেয়ে খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজের সম্মান শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী, সাবেক দলনেতা চারু বিকাশ ত্রিপুরা পুনরায় দলনেতা, খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজের সম্মান ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী সানোয়ারা এবং রাঙ্গামাটি সরকারি কলেজের সম্মান শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী মো: মেহেদি হাসান সোহাগ সহ-দলনেতা হিসেবে নির্বাচিত হয়েছে।
সনাক-টিআইবি খাগড়াছড়ির আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক সুইমং চি মারমা’র সঞ্চালনায় সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত উক্ত সভায় সনাক খাগড়াছড়ির ইয়েস উপ-কমিটির আহবায়ক বিধান রায় বিশ্বাস, সহকারি ব্যবস্থাপক (অর্থ ও প্রশাসন) দুর্লভ চৌধুরী, সাবেক ইয়েস দলনেতা দহেন বিকাশ ত্রিপুরা, সাবেক ইয়েস সহ দলনেতা জেকি চাকমা, খোকন বিকাশ ত্রিপুরাসহ ১৯ জন ইয়েস সদস্যবৃন্দ সংযুক্ত ছিলেন।
খাগড়াছড়ি সনাক সভাপতি প্রফেসর বোধিসত্ত্ব দেওয়ান’ নতুন নেতৃত্বদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, দলনেতারাই হচ্ছে ইয়েসের মুখপাত্র। যারা সদস্য আছে তাদেরকে নেতৃত্ব দিয়ে সুনামের সাথে খাগড়াছড়ি সনাকের কার্যক্রমকে চালিতে যেতে প্রচেষ্টা থাকবে।
ইয়েস উপ-কমিটির আহবায়ক বিধান রায় বিশ্বাস জানান, নতুন নেতৃত্বদের অভিনন্দন ও স্বাগতম। সংগঠনের আদর্শকে লালন করে দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলনকে সামাজিক আন্দোলনে আরও জোরদার করবে।
এরিয়া ম্যানেজার সুইমং চিং মারমা জানান, ইয়েস দলনেতা পদে সর্বাধিক ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন চারু বিকাশ ত্রিপুরা। বিজয়ী নেতৃত্বকে শুভ কামনা জানাই। ইয়েস সংগঠন আরো শক্তিশালী হোক এই কামনা করি। আপনাদের সকলকে ধন্যবাদ এই প্রতিদ্বন্দ্বিতাময় নির্বাচনে ভোট দেওয়ার জন্য।
নতুন নেতৃত্বে আসা দলনেতা চারু বিকাশ ত্রিপুরা তার অভিব্যক্তি জানিয়ে বলেন, সকল পর্যায়ের দুর্নীতি রোধ করে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা প্রতিষ্ঠা করার জন্য দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলনের বিকল্প নেই। জনগণের মধ্যে দুর্নীতি প্রতিরোধ ও সুশাসন প্রতিষ্ঠার ব্যাপক চাহিদা সৃষ্টির মাধ্যমে দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলনকে আরও বেগবান করার লক্ষ্যে বিভিন্ন রকমের সচেতনতামূলক কর্মসূচি পালন করার ক্ষেত্রে সর্বাত্মক চেষ্টা অব্যাহত থাকবে।
অন্যদিকে সহ দলনেতা মো: মেহেদি হাসান সোহাগ ও সানোয়ারা রহমান বলেন, আমাদের একা কোনো কিছু করা সম্ভব নয়। সবাইকে সাথে নিয়ে গড়ে তুলবো দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলন। সুবিধাবঞ্চিত নারী-পুরুষের অংশগ্রহণের মাধ্যমে সুশাসন প্রতিষ্ঠা ও টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করতে সবার সহযোগিতা কামনা করেন।