• May 22, 2024

খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা নির্বাচনে সম্ভাব্য প্রার্থীরা তৎপর

স্টাফ রিপোর্টার: ফেব্রুয়ারি প্রথম সপ্তাহে তফসিল ঘোষণা হলে মার্চের মাঝামাঝি সময়ে ২য় ধাপে খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দিন ধার্য্য হতে পারে। সারা দেশের মতো খাগড়াছড়িতেও শুরু হয়েছে উপজেলা পরিষদের নির্বাচনের হাওয়া। চলছে সরকার দলীয় সম্ভাব্য প্রার্থীদের দলীয় মনোনয়ন পেতে নানা তৎপরতা। বিএনপি নির্বাচনে যাচ্ছে না এমন খবরে প্রার্থী মনোনয়নে শাসক দলের চলছে নানা হিসেবে-নিকেশ। বসে নেই পাহাড়ে আলোচিত আঞ্চলিক রাজনৈতিক সংগঠনগুলো। সংগঠনগুলো নিচ্ছে নানা কৌশলের আশ্রয়। খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদে আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পদে একাধিক প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। তবে সম্ভাব্য প্রার্থীরা জানিয়েছেন, দল যাকে মনোনয়ন দিবেন, তার পক্ষে কাজ করবেন।

খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে যাদের নাম শোনা যাচ্ছে, তারা হলেন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মো. শানে আলম, বর্তমান সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা কার্বারী এসোসিয়েশনের সভাপতি এবং খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা বিএনপির সহ-সভাপতি রণিক ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও খাগড়াছড়ি সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি নুরুল আজম, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জাবেদ হোসেন, সদর উপজেলার গোলাবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জ্ঞান রঞ্জন ত্রিপুরা, পেরাছড়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান সঞ্জীব ত্রিপুরা খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজ শাখার সাবেক সভাপতি বিশ্বজিত রায় দাশ ও ভাইস চেয়ারম্যান পদে জেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি মেহেদী হাসান হেলাল।

মো. শানে আলম তৃতীয় উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান ছিলেন। চতুর্থ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রতিদ্বন্দি¦তা করে তৃতীয় ও ২০১৫ সালে অনুষ্ঠিত খাগড়াছড়ি পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দি¦তা করে স্বতন্ত্র প্রার্থীর কাছে পরাজিত হন। বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির খাগড়াছড়ি জেলা ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক ও ক্রীড়া সংগঠক মো. শানে আলম পঞ্চম উপজেলা পরিষদেও চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশা করে বলেন, দলীয়ভাবে যাকে মনোনয়ন দেওয়া হবে আমি তার পক্ষে কাজ করবো।

অপর দিকে বর্তমান সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা কার্বারী এসোসিয়েশনের সভাপতি বিএনপির নেতা রণিক ত্রিপুরা চেয়ারম্যান পদে ইতিমধ্যে প্রচারণার মাঠে নেমেছেন স্বীকার করে বলেন, জেলা কার্বারী এসোসিয়েশন আমাকে প্রার্থী হওয়ার জন্য অনুরোধ করেছেন। বিএনপির নির্বাচনের অংশ না নিলে কি করবেন এমন প্রশ্নের জবাবে রণিক ত্রিপুরা বলেন, খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা বিএনপির কমিটিতে একটি পদে তাকে রাখা হয়েছে জেনেছেন। আমি মূলত: কার্বারী এসোসিয়েশনের প্রতিনিধিত্ব করছি। গত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনেও কার্বারী এসোসিয়েশনের প্রতিনিধি হিসেবে নির্বাচনে অংশ নিয়েছি।

খাগড়াছড়ি সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি নুরুল আজম দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশা করে বলেন, আমি দলীয় মনোনয়ন পেলে বিপুল ভোটের ব্যবধানে নির্বাচিত হবো। তবে দল যাকে মনোনয়ন দেবে তার পক্ষে কাজ করবো। উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে খাগড়াছড়ি সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান হিসেবে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী বিশ্বজিত রায় দাশ বলেন এ খাগড়াছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যানের নেতৃত্বের সুযোগ পেলে “জনতার কাতারে থেকে কাজ করে যেতে চাই। সাবেক খাগড়াছড়ি পৌরসভার ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও জেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি মেহেদী হাসান হেলাল খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হওয়ার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইতিমধ্যে প্রচারণায় নেমেছেন। তবে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে এখনো কোন তৎপরতা চোখে পড়েনি। এদিকে পাহাড়ে আলোচিত আঞ্চলিক রাজনৈতিক সংগঠন ইউপিডিএফ(প্রসীত) এবারও খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদে প্রার্থী দিচ্ছেন। তবে তা হবে অতীতের মতো ভিন্ন কৌশলে। আবারও স্বতন্ত্র হিসেবে কাউকে প্রার্থী করতে পারে সংগঠনটি।

গত চতুর্থ উপজেলা পরিষদের খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদের চঞ্চু মনি চাকমাকে প্রার্থী দিয়েছিলেন ইউপিডিএফ। ঐ নির্বাচনে প্রসীত খীসার নেতৃত্বাধীন ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট(ইউপিডিএফ) প্রার্থী চঞ্চুমনি চাকমা ১৩,৪২৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার নিকটতম বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী কংচাইরী মগ পান ১৩,২৬২ ভোট। পঞ্চম উপজেলা পরিষদে বিএনপি অংশ না নিলে তাদের এ বিশাল ভোট কোন দিকে যাবে তা দেখতে অপেক্ষা করতে হবে নির্বাচনের দিন পর্যন্ত।

খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক চন্দন দে বলেন, উপজেলা পরিষদে যারা প্রার্থী হতে ইচ্ছুক তারা দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার জন্য আবেদন করবেন। আবেদন বাছাই করে দল যাকে যোগ্য মনে করবেন, তাকে দলীয় প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করবেন।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post