খাগড়াছড়ি হাইস্কুল মাঠে ইব্রাহিম খলিলের জানাজায় হাজারো মানুষের ঢল

Homeপাহাড়ের সংবাদখাগড়াছড়ি সংবাদ

খাগড়াছড়ি হাইস্কুল মাঠে ইব্রাহিম খলিলের জানাজায় হাজারো মানুষের ঢল

স্টাফ রিপোর্টার: খাগড়াছড়ি জেলা সদরের আলহাজ্ব তনু মিয়ার দ্বিতীয় পুত্র জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম খলিল (৪০) এর জানাযার নামাজে অগণিত মানুষ অংশ

রামগড়ে প্রধান মন্ত্রীর ত্রাণ পেলেন ফার্নিচার  মালিক- কর্মচারী ও পরিবার
খাগড়াছড়িতে নতুন বই হাতে উচ্ছ্বসিত শিক্ষার্থীরা
রামগড়ে মৎস্য চাষীদের প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

স্টাফ রিপোর্টার: খাগড়াছড়ি জেলা সদরের আলহাজ্ব তনু মিয়ার দ্বিতীয় পুত্র জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম খলিল (৪০) এর জানাযার নামাজে অগণিত মানুষ অংশ গ্রহণ করে। ধারনা করা হচ্ছে প্রায় ১২ থেকে ১৫হাজার মানুষ এই নামাজে জানাজায় অংশ গ্রহণ করে। বিগত বছরে খাগড়াছড়ি জেলায় কোন ব্যক্তির জানাজায় এত মানুষ উপস্থিত হয়নি। দলমত নির্বিশেষে অসংখ্য মানুষের ভালবাসায় সমাহিত হলেন তিনি।
৪ মে বৃহস্পতিবার ভোরে চট্টগ্রাম স্পেশালাইজড ট্রিটমেন্ট এন্ড ট্রমা সেন্টারে নিবিড় পর্যবেক্ষণে থাকা অবস্থায় তিনি মারা যান। বৃহস্পতিবার বেলা আড়াইটায় খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে তার জানাযার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। সাবেক এমপি ওয়াদুদ ভূইয়াসহ কেন্দ্রীয় যুবদলের নেতৃবৃন্দ ও জেলার উপজেলার নেতৃবৃন্দরা জানাজায় অংশ নেন।
২৭ এপ্রিল ফেনী জেলায় অবস্থানকালে হঠাৎ ব্রেইন স্ট্রোকে আক্রান্ত হন খলিল। তাৎক্ষণাৎ তাকে নেওয়া হয় চট্টগ্রাম এভার কেয়ার হাসপাতালে। ২৮ এপ্রিল মধ্যরাত হতে ২৯ এপ্রিল ভোর রাত পর্যন্ত ৪ ঘন্টা ব্রেনে অপারেশন করে চিকিৎসকরা।
অপারেশনের পর থেকে এভারকেয়ারে আইসিওতে রাখা হয়। এরপর আইসিও থেকে বের করে তাকে চট্টগ্রাম স্পেশালাইজড ট্রিটমেন্ট এন্ড ট্রমা সেন্টারে নেওয়া হয়। সেখানে নিবিড় পর্যবেক্ষণে থাকা অবস্থায় বৃহস্পতিবার ভোরে মারা যান তিনি। খাগড়াছড়ি কেন্দ্রীয় কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়। রাজনৈতিক, সামাজিক সংগঠনসহ বিভিন্ন সাংবাদিক ও সকল সকল স্তরের মানুষ তার রূহের মাগফেরাত কামনা এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, দুই সন্তান, পিতা-মাতা, ভাইবোনসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তাঁর এই অকাল মৃত্যুতে পুরো জেলায় শোকের ছায়া নেমে আসে। খলিলের সুস্থতা কামনাসহ মৃত্যুর খবর ভাইরাল হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। শোকবার্তা দেয়ার পাশাপাশি রুহের মাগফেরাত কামনা করেছেন সকলেই।