গুইমারায় এক দিনে ২ স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা

স্টাফ রিপোর্টার: গুইমারা উপজেলার বড়পিলা ও ডাক্তারটিলা এলাকায় একইদিনে দুই স্কুল পড়ুয়া ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, রবিবার রাতে উপজেলার বড়পিলাক এলাকায় আলা উদ্দিনের বাকপ্রতিবন্ধী মেয়ে মিশু আক্তার (১২) গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। সে বড়পিলাক সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী। তবে আত্মহত্যার কারন জানা না গলেও প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে পরিবারের সাথে অভিমান করে ময়েটি আত্ম হত্যা করে।

অপরদিকে একই সময়ে উপজেলার ডাক্তারটিলা এলাকার মৃত মোঃ মহিউদ্দিন মিলন (টেইলার) এর মেয়ে রাউদিয়া সুলতানা মিলি (১৫) বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছে। পুলিশ জানায়, অভাবী পরিবারের মেয়ে মিলি এবার গুইমারা মডেল হাই স্কুলের এসএসসি পরিক্ষার্থী। সে টেস্ট পরিক্ষায় ৬ বিষয়ের ফলাফল খারাপ করায় মা য়ের বকা খেয়ে অভিমান করে বিষ পান করে। পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে মাটিরাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়িতে আনার সময়ে রাস্তায় তার মৃত্যু হয়।

এবিষয়ে গুইমারা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ শাহাদাৎ হোসেন টিটো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রবিবার রাতে পৃথক পৃথক এলাকায় ২ কিশোরী আত্মহত্যা করেছে। নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে তদন্তের জন্য খাগড়াছড়ি আধুনিক সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। এ বিষয়ে গুইমারা থানায় দুটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

Read Previous

রামগড়ে অস্ত্র ও গুলিসহ সন্ত্রাসী আটক

Read Next

খাগড়াছড়িতে পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারিদের কর্মবিরতি পালন