নববর্ষে মানিকছড়িতে নানা আয়োজন

আবদুল মান্নান,মানিকছড়ি: বাংলা নববর্ষ মানে আনন্দের জোয়ার। দেশব্যাপি নানা আয়োজনে দিবস পালন করা হলেও পাহাড়জুড়ে এ আনন্দের মাত্রায় পাহাড়ি-বাঙ্গালি একাকার।

লক্ষ্মীছড়ির বাইন্যাছোলা-মানিকপুর হাইস্কুলে বঙ্গবন্ধু’র জন্ম দিন ও শিশু দিবস উদযাপন
পানছড়ি উপজেলা কৃষক লীগের উদ্যোগে নগদ এক হাজার টাকা করে র্আথিক সহায়তা প্রদান
খাগড়াছড়িতে পোল্ট্রি শিল্প খামারীদের মানববন্ধন 

আবদুল মান্নান,মানিকছড়ি: বাংলা নববর্ষ মানে আনন্দের জোয়ার। দেশব্যাপি নানা আয়োজনে দিবস পালন করা হলেও পাহাড়জুড়ে এ আনন্দের মাত্রায় পাহাড়ি-বাঙ্গালি একাকার। প্রতি বছরের ন্যায় এবারও নববর্ষের প্রথম প্রহরে উপজেলা প্রশাসনের বর্ণাঢ্য র‌্যালি ও ত্রি-মৈত্রী বটমূলে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বঙ্গাব্দ-১৪২৫’কে বরণ করে নিল মানিকছড়িবাসী।

১৪ এপ্রিল সকালে সাড়ে ৭টায় পহেলা বৈসাক’কে স্বাগত জানিয়ে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করেন উপজেলা প্রশাসন। এতে স্কুলের ক্ষুদে শিক্ষার্থীরা ফেস্টুন, বেলুন হাতে নবরুপে গাঁয়ের বধু, নববধু, ফুলওয়ালী, দইওয়ালা, পলকিতে বর-কনে সেজে আয়োজনকে নানা রঙ্গে রাঙ্গিয়ে তুলেছে।

র‌্যালিতে সিন্দুকছড়ি জোন কমান্ডার লে.কর্ণেল রুবায়েত মাহমুদ হাসিব, উপজেলা চেয়ারম্যান ¤্রাগ্য মারমা, ইউএনও মো.আহ্সান উদ্দীন মুরাদ, সহকারি কমিশনার (ভূমি) রুবাইয়া আফেরোজ, অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ রশীদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মো. জয়নাল আবেদীন,সাধারণ সম্পাদক মো. মাঈন উদ্দীন, ইউপি চেয়ারম্যান মো.শফিকুর রহমান ফারুক, শিক্ষক মো. আতিউল ইসলাম,বিপ্লব চত্রবর্তী, মো.বশির আহম্মদ, যুবলীগ নেতা মো. সামায়উন ফরাজী সামু, মো. জাহাঙ্গীর আলম,মারমা সংসদ নেতা মংশেপ্রু মারমাসহ শিশু-কিশোর,তরুণ-তরুণীরা নানা সাজে সজ্জিত হয়ে র‌্যালিতে অংশ নেয়।

র‌্যালিটি উপজেলা পরিষদ চত্বর থেকে শুরু হয়ে মানিকছড়ি গিরিমৈত্রী ডিগ্রি কলেজ সংলগ্ন ত্রি-মৈত্রী বটমূলে গিয়ে শেষ হয়। এর পর শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। স্থানীয় শিল্পিদের পাশাপাশি বিটিভি(চট্টগ্রাম) ও এটিএন বাংলা’র শিল্পিসহ মিরাক্কেল কায়কুবাদ গান,নৃত্য ও কৌতুক উপস্থাপন করেন।