খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদগুইমারাপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কর্তৃক হাফছড়ি মসজিদে ঢেউটিন বিতরণ

শাহ আলম রানা,গুইমারা: বর্তমানে পার্বত্য চট্টগ্রামে বসবাসরত সকল ধর্মের মানুষ স্বাধীনভাবে নিজ নিজ ধর্ম পালন করতে পারছে। ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানগুলোর উন্নয়নে সরকার নানা পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে বলে মন্তব্য করে খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী বলেছেন পার্বত্যাঞ্চলের মানুষ শান্তিপ্রিয়। সরকারও পাহাড়ে শান্তি প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছে।

শুক্রবার বিকেলে এক অনাঢ়ম্বর অনুষ্ঠানে খাগড়াছড়ি’র গুইমারা উপজেলার উত্তর হাফছড়ি মোহাম্মদিয়া জামে মসজিদ পুনঃ নির্মাণের জন্য পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরীর ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ২৯বান্ডেল ঢেউটিন বিতরণ কালে উপস্থিত সংবাদকর্মী ও গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উদ্দেশ্যে সব কথা বলেন তিনি।

২০০৯নং সালে জেলার গুইমারা উত্তর হাফছড়ি এলাকার বাসিন্দা আমজাদ ফরাজীর ১.২৪একর দান করা জমিতে মসজিদটি নির্মাণ করা হলেও সংস্কারের অভাবে বর্তমানে জরাজীর্ণ অবস্থায় পড়ে থাকার সংবাদ শুনে কংজরী চৌধুরী দ্রুত মসজিদটি সংস্কারের উদ্যোগ গ্রহণ করেন। প্রবল বৃষ্টি উপেক্ষা করে শুক্রবার বিকেলে মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ আমান উল্ল্যাহ ও মসজিদের প্রতিষ্ঠাতা দাতা সদস্য আমজাদ ফরাজীর হাতে ২৯বান্ডেল ঢেউটিন তুলে দেন।

মসিজদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ আমান উল্ল্যাহ জানান, প্রতিদিন এ মসজিদে শতাধিক মুসল্লী নামাজ আদায় করলেও মসিজদের ফান্ড না থাকায় এবং এলাকার মুসল্লীগণ দরিদ্র হওয়ার কারণে সংস্কার করা সম্ভব হচ্ছিল না বিষয়টি কংজরী চৌধুরীকে জানালে তিনি সংস্কারের ব্যবস্থা করে দেওয়ায় মসজিদ পরিচালনা কমিটি ও এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা প্রকাশের পাশাপাশি পাজেপ চেয়ারম্যানের দীর্ঘায়ূ কামনা করেন।