চট্টগ্রাম সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

ফটিকছড়িতে শিশু ধর্ষণের ঘটনায় গ্রেফতার ১

ফটিকছড়ি প্রতিনিধি: ফটিকছড়িতে ১৩ বছর বয়সী শিশু ধর্ষনের ঘটনায় এক ব্যক্তি গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে নানুপুর ইউনিয়নের কিপাইন নগর গ্রাম থেকে ধর্ষককে গ্রেফতার করে। এ ব্যাপারে ফটিকছড়ি থানায় মামলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ফটিকছড়ি থানার এস আই দেলোয়ার হোসেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, ২৪ফেব্রুয়ারী বিকাল ৩টায় কিপাইত নগর গ্রামের একটি মাদ্রাসার দাড়োয়ান শফিউল আলম শারীরিক অসুস্থতার কারণে তার ১৩ বছর বয়সী কন্যাকে মাদ্রাসার তালাবদ্ধ করার জন্য পাঠায়। সেখানে কোন লোকজন না থানায় স্থানীয় বকাটে সিএনজি চালক বাঘা সেলিম (৪০) শিশুটিকে জোরপূর্বক অফিস কক্ষে ধরে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে শিশুটি বাড়ি এসে তার মাকে জানায়। তার মা স্থানীয় গ্রাম্য ডাক্তারকে দেখিয়ে ব্যাথার ঔষদ দিতে বলে। সেই ঔষদ খাওয়ার পরও শিশুটির ব্যথা ও রক্তক্ষরণ বন্ধ না হওয়ায় ২৮ফেব্রুয়ারী বুধবার নাজিরহাট একটি বেসরকারী ক্লিনিকে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে দ্রুত চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ সার্ভিস সেন্টারে রেফার করে। কিন্তু শিশুটির অভিভাবক বাড়ি নিয়ে যায়। সেখানে স্থানীয় কিছু মোড়ল দফা-রফা করতে চায়। সেটি না মেনে তার অভিভাবক বৃহস্পতিবার সকালে ফটিকছড়ি থানায় অভিযোগ করলে দ্রুত অভিযান চালিয়ে ধর্ষক বাঘা সেলিমকে কিপাইত নগর গ্রাম থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

এ ব্যাপারে ফটিকছড়ি থানার ওসি জাকের হোসেন ভূইয়া বলেন, ধর্ষিত শিশুটিকে চমেকের ওয়ান স্টপ সার্ভিস সেন্টারে পাঠানো হয়েছে। শিশু ধর্ষণের ঘটনায় তার পিতা শফিউল আলম বাদী হয়ে নারী শিশু নির্যাতনের ৯(১) ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।