খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদমহালছড়িশিরোনামস্লাইড নিউজ

মহালছড়িতে নদীতে মা গঙ্গার উদ্দেশ্যে ফুল দিয়ে শুরু হলো পাহাড়িদের বৈসাবি উৎসব

মহালছড়ি প্রতিনিধি: করোনা (কোভিড-১৯ ) অতিমারি পরিস্থিতিতেও পাহাড়িদের কথিত ফুল বিঝু’র দিনে নদীতে ফুল দিয়ে বাংলা নববর্ষকে স্বাগত জানানোর মধ্য দিয়ে ঢিলেঢালা ভাবে মহালছড়িতে শুরু হলো পাহাড়ীদের সবচেয়ে বড় উৎসব বৈসাবি।

১২ এপ্রিল সোমবার সকাল ৬ টার দিকে প্রতিটি পাহাড়ি গ্রাম থেকে কিশোর-কিশোরীরা দল বেঁধে নিজ গ্রামের পাশ্ববর্তী নদীতে গিয়ে ফূল দেওয়া হয়। ত্রিপুরাদের বৈসু, মারমাদের সাংগ্রাই ও চাকমাদের বিঝু এ তিনটি নামের আদ্যক্ষর নিয়ে এ উৎসব পার্বত্য চট্টগ্রামে সাধারাণত বৈসাবি নামে পরিচিত। মা গঙ্গার উদ্দেশ্যে বিশ্বের সকল প্রাণীর হিতার্থে নদীতে ফুল দিয়ে বাংলা নববর্ষকে স্বাগত জানিয়ে বৈসাবি উৎসব শুরু হয়। এই দিন ভোরে ঘুম থেকে উঠে তরুণ-তরুণীরা বাড়ি বাড়ি ও বিভিন্ন এলাকা ঘুরে ফুল সংগ্রহ করে এবং নিজেদের ঐতিহ্যবাহী পোশাক পরিধান করে বিশ্ব শান্তি কামনায় নদীতে ফুল দেওয়া হয়।

এই দিনটি উপলক্ষে পাহাড়ের বাড়িগুলো বিভিন্ন ফুল দিয়ে সজ্জ্বিত করা হয়। গ্রামে গ্রামে আয়োজন করা হয় বিভিন্ন খেলা-ধুলার প্রতিযোগিতা। আগামীকাল অর্থাৎ ১৩ এপ্রিল মূল বিজু, এই দিনে পাহাড়ীদের প্রত্যেকটি বাড়িতে রান্না করা হয় ৩৩ প্রকার সবজি মিশ্রিত পাচন ও পায়েস। এছাড়াও পাহাড়ীদের তৈরিকৃত বিভিন্ন ধরনের হাতের তৈরি সুস্বাদু পিঠা। আপ্যায়ন করা হয় অতিথিদের। যদিও বর্তমান করোনা পরিস্থিতির কারণে উৎসবের আনন্দ কিছুটা ভাটা পড়লেও কিশোর-কিশোরীদের আনন্দের কমতি নেই। বৈসাবি উৎসব মূলত তিনদিন হওয়ার কথা থাকলেও কমপক্ষে সপ্তাহব্যাপী এ উৎসব চলবে।