• July 14, 2024

মাটিরাঙ্গায় এনজিও প্রতিষ্ঠানগুলোর গণজমায়েত করোনা সংক্রমণ ঝুঁকি বাড়তে পারে

মাটিরাঙ্গা প্রতিনিধি: করোনাভাইরাস প্রতিরোধে দেশের প্রশাসন যখন সাধারণ মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি ও সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্ভন করার তাগিদ দিচ্ছেন, ঠিক সে সময় এনজিও ও ব্যাংকগুলো তাদের ক্ষুদ্র্র্ঋন কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন প্রশাসনের নির্দেশনাকে তোয়াক্কা না করেই। সরেজমিনের তথ্যমতে, আজ (২৩ মার্চ) সরকারি নির্দেশনাকে ফাঁকি দিয়ে গণজমায়েতের মাধ্যমে ঋন আদায় কার্যক্রম চালিয়েছেন এনজিও ও ব্যাংক প্রতিষ্ঠানগুলো। ফলে সরকারের করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধ কার্যক্রম ব্যহত হচ্ছে বলে মনে করছেন সচেতন মহল।

অন্যদিকে, মাটিরাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ এর দেওয়া তথ্যানুযায়ী হোম কোয়ারেন্টাইন এ রয়েছেন বিদেশ ফেরত ২৫ জন । সেই ২৫ জনের মধ্যে অনেককেই বিভিন্ন সময় বাড়ীর বাহিরে ঘোরাফেরা করতে দেখা গেছে মন্তব্য করে মাটিরাঙ্গা প্রেস ক্লাবের সভাপতি এমএম জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এসব প্রবাসীদের কারণেও আরো বেশী পরিমাণে করোনাভাইরাস (প্রাণনাশী জীবানু) সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি রয়েছে । এ সময় তিনি হোম কোয়ারেন্টেইনে যারা রয়েছেন তাদেরকে পরিবারসহ নিবির তদারকির ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি।
এছাড়াও ২২ মার্চ করোনাভাইরাস প্রতিরোধে পৌরসভা ও ইউনিয়ন পর্যায়ের কমিটির সাথে সার্বক্ষনিক যোগাযোগের রক্ষায় কর্মকর্তা নিয়োগ করা হয়েছে উপজেলা প্রশাসনের মাধ্যমে।

এদের মধ্যে মাটিরাঙ্গা পৌরসভার দায়িত্বে রয়েছেন সহকারী কমিশনার (ভূমি), তাইন্দং ইউনিয়নে উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা-০১৫৫২৭০৩৯৫০, তবলছড়ি ইউনিয়নে উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা-০১৮১৮৫২০৯৮৭, বড়নাল ইউনিয়নে ইন্সট্রাক্টর, উপজেলা রিসোর্স সেন্টার-০১৫৫৩৬৭৫৫২৮, গোমতি ইউনিয়নে উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা-০১৭১২৫১৫৯৫৫, বেলছড়ি ইউনিয়নে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা-০১৭১৭১৫৩০৭০ ও আমতলী ইউনিয়নে উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা-০১৬৮২৩৩৭৪৬৬।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post