মাটিরাঙ্গায় পোনা অবমুক্ত, র‌্যালি ও আলোচনার মধ্য দিয়ে মৎস্য সপ্তাহ উদ্বোধন

মাটিরাঙ্গা প্রতিনিধি: “স্বয়ং সম্পুর্ণ মাছে দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ”এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে-খাগড়াছড়ি জেলার মাটিরাঙ্গায়  জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ-২০১৮ উদয

খাগড়াছড়ি জেলা বিএনপি’র উদ্যোগে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে লিফলেট বিতরণ
গুইমারা উপজেলা নির্বাচন প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্ধ
মহালছড়িতে সেনাবাহিনী কর্তৃক বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা

মাটিরাঙ্গা প্রতিনিধি: “স্বয়ং সম্পুর্ণ মাছে দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ”এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে-খাগড়াছড়ি জেলার মাটিরাঙ্গায়  জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ-২০১৮ উদযাপন উপলক্ষে পোনা অবমুক্ত করন, র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলা পরিষদ থেকে একটি র‌্যালি বের হয়ে মাটিরাঙ্গা মুক্তিযোদ্ধা চত্বর প্রদক্ষিণ শেষে পুনরায় উপজেলা পরিষদে গিয়ে শেষ হয়। এরপর উপজেলা পরিষদ হলরুমে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা মৎস্য দপ্তর আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মাটিরাঙ্গা উপজেলা মৎস্য অফিসার আরিফুর রহমান। সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান মিসেস হাসিনা বেগম, মাটিরাঙ্গা সহকারী কমিশনার ভুমি মোহাম্মদ আলী, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক সুবাস চাকমা, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো: শাহ আলম মিয়া, মাটিরাঙ্গা সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান হিরন জয় ত্রিপুরা, মৎস্য চাষী আমান উল্লাহ ভুইয়া, আমতলী ইউপি ৪নং ওয়ার্ড মেম্বার মো: ইউনুস মিয়া প্রমুখ।

সভায় বক্তরা বলেন, স্বাধীনতার পর পর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-ই সর্বপ্রথম পোনা অবমুক্ত করনের মধ্যদিয়ে মৎস্য খাতের উন্নয়নে সুচনা করেছিলেন। তারই ধারাবাহিকতায় মৎস খাতের উন্নয়নে সরকারের গৃহীত নানা পদক্ষেপে বর্তমানে মৎস্য উৎপাদনে বাংলাদেশ বিশ্বে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে মন্তব্য করে মৎস্য চাষে পোল্ট্রি খাদ্য ব্যবহার বন্ধসহ মাগুর মাছ ও পিরানহা মাছের মতো রাক্ষুসে মাছ চাষ না করার আহবান জানান বক্তারা। নতুন নতুন চাষীদের বিভিন্ন পরামর্শ ও প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষনের আয়োজন করার আহবান জানান তারা। এছাড়াও মাটিরাঙ্গা উপজেলায় মৎস্য খাতে অনেক সম্ভবনা রয়েছে উল্লেখ করে যাদের প্রথম শ্রেনির আবাদ যোগ্য জমি রয়েছে তাদের বর্ষা কালের ৮ মাস মৎস্য চাষে জমি ব্যবহারের পরামর্শ দিয়ে বাকী ৪ মাস ধান চাষ করার আহবান জানান তারা। বিলুপ্ত প্রজাতির মাছ সংরক্ষনের আহবান জানিয়ে মাছের প্রজনন মৌসুমে পাহাড়ের সৃজিত বাগানে কীটনাশক প্রয়োগ সচেতন হওয়ার আহবান জানান।  এর আগে মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার অন্যান্যদের সাথে নিয়ে উপজেলা পরিষদের পুকুরে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন।