• June 19, 2024

রাঙ্গুনিয়ায় ময়না তদন্ত ছাড়াই লাশ দাফন

রাঙ্গুনিয়া প্রতিনিধি: রাঙ্গুনিয়া পোমরা ইউনিয়নের পানি শোধানাগার প্রকল্প (ওয়াসা) মিক্সিং ট্যাংকের প্রায় ৮ফুট নিচ থেকে গতকাল বুধবার ভোরে সহকারী পাম্প চালক নুরুল আবছার চৌধুরী (৫৬) নামের এক শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহতের মাথা, পায়ে ও শরীরের বিভিন্ন অংশে জখমের চিহ্র রয়েছে বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন। শ্রমিকের মৃত্যুটি দূর্ঘটনা নাকি পরিকল্পিত হত্যাকান্ড তা বিস্তারিত জানা যায়নি। তবে ময়না তদন্ত ছাড়া নিহত শ্রমিকের লাশ রাউজান উপজেলার কোয়েপাড়া এলাকায় দাফন করা হয়েছে বলে জানা গেছে।
জানা যায়, রাঙ্গুনিয়ায় শেখ হাসিনা পানি শোধানাগার প্রকল্পের সহকারী পাম্প চালক (এপিও) শ্রমিক নুরুল আবছার চৌধুরী গত মঙ্গলবার রাতে কর্তব্যরত অবস্থায় ময়লা পরিস্কারের লাঠি আনতে আনতে যাওয়ার পথে মিক্সিং ট্যাংকের গভীর পড়ে গিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত প্রাপ্ত হয়ে গুরুতর আহত হন। ভোরে শ্রমিকরা খালি ট্যাংকে তার নিথর দেহ পড়ে থাকতে দেখেন। রাঙ্গুনিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। ওয়াসায় কর্তব্যরত কর্মকর্তারা এ মৃত্যুকে দুর্ঘটনা বলে দাবী করেন।
নিহতের শ্রমিকের লাশ ময়না তদন্ত ছাড়াই তড়িঘড়ি দাফন করার কারনে স্থানীয়দের মাঝে নানা বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। ওয়াসার বিভিন্ন আভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারনে ঠান্ডা মাথায় সু-পরিকল্পিত ভাবে শ্রমিককে হত্যা করা হয়েছে বলে স্থানীয়রা ধারনা করছেন। দূর্ঘটনা কবলিত ট্যাংক এলাকাটি অরক্ষিত। স্থানীয় আওয়ামীলীগের এক নেতা জানান, দূর্ঘটনা কবলিত ট্যাংক এলাকাটি মূলত হিন্দু সম্প্রাদায়ের শশান হোলা (কবরস্থান)। শশান হোলার উপর ট্যাংক নির্মাণ করায় মন্দশক্তি কর্তৃক দূর্ঘটনাটি ঘটেছে বলে তিনি দাবী করেন।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post