লামায় ঘরে ঢুকে হামলা, টাকা লুট : আহত ১

লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি: বান্দরবানের লামায় পুর্ব শত্রুতার জেরে এক যুবককে হত্যার উদ্দেশ্যে ঘরে ঢুকে হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার ভোর ৩টায় সদর ইউ

লামায় নারী উন্নয়ন ও স্বাস্থ্যখাত উপেক্ষিত : ৫৪ লাখ টাকা ব্যয়ে ৪২ প্রকল্প বাস্তবায়িত
খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদের উদ্যোগে পার্বত্য চুক্তির ২৩ তম বর্ষপূর্তি উদযাপন
বিএনপি-জামাত নির্বাচনের আগে নতুন প্রজম্মকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে- কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, এমপি

লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি: বান্দরবানের লামায় পুর্ব শত্রুতার জেরে এক যুবককে হত্যার উদ্দেশ্যে ঘরে ঢুকে হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার ভোর ৩টায় সদর ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে মেউলারচর পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। হামলায় গুরুতর আহত একই পাড়ার বাসিন্দা নুরুল ইসলামের ছেলে মোঃ মোর্শেদকে স্থানীয়রা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছেন।

হাসপাতালে সরজমিন গিয়ে জানতে চাইলে আহত মোর্শেদ জানান, ‘বৃহস্পতিবা একই পাড়ার বাসিন্দা রমজানের ছেলে ফারুখের একটি গরু আমার ফসল খেয়ে ফেলে। এ কারনে আমি গরুটাকে বেঁধে রাখি। পরে ফারুখ তার গরু নিতে আসলে উত্তপ্ত কথা কাটাকাটি হয়। এ ঘটনার জেরে ফারুখ আরো ৩ জনসহ শনিবার ভোররাতে আমি যখন গভীর ঘুমে ছিলাম তখন তারা ঘরের বেড়া কেটে ঢুকে আমার হাত পা ও বুকের উপর চেপে ধরে অন্যজন জবাই করে হত্যার চেষ্টা করে। আমি জেগে উঠে তাদের সাথে ধস্থাধস্থি করে নিজেকে রক্ষা করি।

এ ঘটনায় আমি বিক্ষিপ্তভাবে তাদে হাতে থাকা ছুরির আঘাতে আহত হই। এসময় আমার শোর চিৎকার শুনে বাড়ির লোকজন ও প্রতিবেশীদের উপস্থিতি টের পেয়ে হামলা কারিরা পালিয়ে যায়। পরে দেখি আমার ব্যাগে রাখা ৯০ হাজার টাকা হামলা কারিরা নিয়ে যায়।

ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিন্টুকুমার সেন বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। পুলিশী তদন্তের আগে মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকার কথা বরেন। পুলিশ পরিদর্শক আনোয়ার হোসেন বলেছেন, হামলার খবর পেয়ে হাসপাতালে আহতকে দেখেছি। তার বক্তব্য আগোছালো। প্রকৃত ঘটনা জানার জন্য সরজমিন ঘটনা স্থল পরিদর্শন করেছি। অবশিষ্ট আইনী প্রকৃয়া ডাক্তারী রিপোর্টের অনুযায়ী নেয় হবে।