খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদমহালছড়িশিরোনামস্লাইড নিউজ

আঞ্চলিক দলের চাপে উদ্বাস্তু হওয়া পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ

মহালছড়ি প্রতিনিধি: আঞ্চলিক রাজনৈতিক দলের চাপে পড়ে বিভিন্ন এলাকা হতে উচ্ছেদ হয়ে আসা মহালছড়ি উপজেলার খুল্যাং পাড়ায় আশ্রয় নেওয়া উদ্বাস্তু অসহায় ৪৪ পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরন করেছেন মহালছড়ির স্থানীয় প্রশাসন। ৩১ মে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় খুল্যাং পাড়া উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ প্রাঙ্গণে প্রতি পরিবারের মাঝে ১ বস্তা করে চাউল বিতরন করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, মহালছড়ি জোন অধিনায়ক লে: কর্ণেল মোহাম্মদ মোসতাক আহমেদ, পিএসসি, মহালছড়ি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বিমল কান্তি চাকমা, মহালছড়ি উপজেলা নির্বাহী অফিসার তামান্না নাসরিন উর্মি, মুবাছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান বাপ্পী খীসা।

ত্রাণ বিতরন কালে জোন অধিনায়ক বলেন, একটি সুষ্ঠ ধারার রাজনৈতিক দল এভাবে সাধারণ জনগণকে ভয় ভীতি দেখিয়ে কোনদিন কষ্ট দিতে পারেনা। এই সংগঠন সেই সংগঠন আমার জানার দরকার নেই। রাজনীতির নামে এলাকায় সন্ত্রাসী কার্যকলাপ মোটেও সহ্য করা হবেনা। তিনি আরো বলেন, সেনাবাহিনী সব সময় আর্তমানবতা সেবায় কাজ করে যাচ্ছে । সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজদের ধরতে সেনাবাহিনীকে সহযোগিতা করার আহবান জানান তিনি। আশ্রয় নেওয়া অসহায় পরিবারসমূহকে পুর্নবাসনের জন্য উপজেলা প্রশাসনের প্রতি প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহনসহ ত্রাণ বিতরনের ধারাবাহিকতা যাতে বজায় থাকে সে জন্য ব্যবস্থা গ্রহনেরও পরার্মশ দেন।

উল্লেখ্য, গত ১১ এপ্রিল নানিয়ারচর উপজেলার বেতছড়িতে প্রসিত পন্থী ইউপিডিএফ এর এক কর্মী গুলিতে নিহত হলে, এম এন লারমা পন্থী জেএসএসকে দায়ী করে আসছে ইউপিডিএফ। যদিও জেএসএস এ দায় স্বীকার করেনি। এরপর থেকে একে অপরকে আক্রমন করতে থাকলে উভয় পক্ষের ২০ জনেরও অধিক কর্মী সমর্থক এ যাবত নিহত হন। ঘটতে থাকে উভয় পক্ষের কর্মী সমর্থক পরিবারের উপড় হুমকি, ভয়ভীতি প্রদর্শন ও পরিবার উচ্ছেদের ঘটনা। এ পরিস্থিতির শিকার হওয়া বিভিন্ন এলাকার উচ্ছেদ হয়ে আসা মহালছড়ির খুল্যাং পাড়া গ্রামে আশ্রয় নিয়েছে ৪৪ টি পরিবার।