খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

খাগড়াছড়িতে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ পালন, কাউন্সিলর মংরে মারমা’র মৃত্যুতে শোক প্রকাশ

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: হৃদরোগ আক্রান্ত হয়ে অকালে চলে গেলেন খাগড়াছড়ি জেলা যুবলীগের সভাপতি ও ৭ নং পৌর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মংরে মারমা। জানা গেছে, ৭ই মার্চ উপলক্ষে খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আয়োজিত র‌্যালি উত্তর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ জাতীয় চার নেতার প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে, খাগড়াছড়ি পৌরসভার সম্মেলন কক্ষে ২০২২-২৩ অর্থ বছরে রি-এসেসম্যান্ট এর আওতায় ধার্য্যকৃত পৌরকরের অভিযোগ নিষ্পত্তি বিষয়ক শুনানী সভায় হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পরে, পৌরসভার কর নিরুপণ ও আদায় বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ০৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মংরে মারমা। সেখান থেকে তাকে খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে নেয়া হলে দুপুর আড়ায়টার দিকে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন জেলা যুবলীগের এই নেতা। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৪৯ বছর। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে এক মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তার অকাল মৃত্যুর খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার হলে, জেলা জুড়ে শোকের ছায়া নেমে আসে।

আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা জানান, সকাল থেকে দলীয় কার্যালয়ে ৭ই মার্চের সকল কর্মসূচীতে স্বরব অংশগ্রহণ করেন তিনি। সদালাপী ও সদা হাস্যজ্জল মানুষ্টির এভাবে অকাল প্রয়াণ যেন মেনে নিতে পারছেনা কেউই। জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক কে এম ইসমাইল হোসেন জানান, জেলা যুবলীগের সভাপতি যতন কুমার ত্রিপুরার মৃত্যুর পর, পদাধীকার বলে যুবলীগের সহ-সভাপতি থেকে গত ১৮ মার্চ ২০২১ইং থেকে ভারপ্রাপ্ত সভাপতির দায়ত্ব দেয়া হয় মংরে মারমাকে। সভাপতি হিসেবে দায়ত্ব পালনের বিষয়টি অনুমোদনের জন্য কেন্দ্রীয় যুবলীগকে লিখিত ভাবে জানানো হয়েছে। এদিকে, তার অকাল মৃত্যুতে খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাংসদ কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, সংরক্ষিত মহিলা এমপি বাসন্তী চাকমা, পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী অপু, পৌর মেয়র নির্মলেন্দু চৌধুরী, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ ও সাধারণ সম্পাদক আলহাজ¦ মোঃ মাইনুল হোসেন খান নিখিল এবং খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগসহ সকল সহযোগী ও বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন তার বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছে।