গাউছুল আ’যম হযরত বাবাভাণ্ডারী (ক.) মানুষে-মানুষে ঐক্য-সম্প্রীতি গড়ার দিক নির্দেশনাই দিয়েছেন

পাহড়ের আলো: মাইজভাণ্ডারী সূফিবাদি দর্শনের বিকাশ ও পূর্ণতাদানকারী গাউছুল আ’যম হযরত শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ গোলামুর রহমান বাবাভাণ্ডারী (ক.)’র ২দিন ব্যাপী ১৫৭তম খোশরোজ শরিফ আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার উদ্যোগে লাখো ভক্ত-জনতার অংশগ্রহণে ও দেশবাসীর ওপর আল্ল¬াহর রহমত, ও নিপীড়িত মানবতার মুক্তির কামনায় আখেরি মুনাজাতের মাধ্যমে পালিত হয়েছে।

আজ ১৪ অক্টোবর সোমবার খোশরোজ শরিফের প্রধান ও সমাপনী দিবসের মাহফিলে সভাপতিত্ব ও আখেরি মুনাজাত পরিচালনা করেন মাইজভাণ্ডার দরবার শরিফের সাজ্জাদানশীন, আনজুমান কেন্দ্রীয় সভাপতি হযরত শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী (ম.জি.আ.)। তিনি বলেনÑ ইসলামের সূফিবাদি দর্শন চর্চার উৎকৃষ্ট স্থান হচ্ছে মাইজভাণ্ডার শরিফ। সূফিসাধকরা কখনো মানুষে-মানুষে কোনো প্রভেদ-বিভাজনকে প্রশ্রয় দেন না। তেমনি গাউছুল আ’যম হযরত সৈয়দ গোলামুর রহমান বাবাভাণ্ডারী (ক.) মানুষে-মানুষে ঐক্য-সম্প্রীতি ও ভ্রাতৃত্বের বন্ধন গড়ার দিক নির্দেশনাই দিয়ে গেছেন। তিনি আজকের সহিংস অশান্ত বিশ্বে শান্তি ও জননিরাপত্তা ফিরিয়ে আনতে হযরত বাবাভাণ্ডারী (ক.) ও মাইজভাণ্ডারী মহাত্মাদের প্রদর্শিত বিশ্বশান্তির রূপরেখা অনুসরণের আহ্বান জানান। খোশরোজ শরিফের কর্মসূচিতে ছিল খতমে কুরআন, খতমে গাউছিয়া, রওজায় গিলাফ চড়ানো, জিয়ারত, ফ্রী চিকিৎসা ক্যাম্প, হুজুর কেবলার জীবনী আলোচনা, ওয়াজ-মিলাদ, ছেমা, কাওয়ালী ও রাতে তবারক বিতরণ।

খোশরোজ মাহফিলে বিশেষ অতিথি ছিলেনÑ শাহ্জাদা আল্হাজ্ব হযরত সৈয়দ মাশুক-এ-মইনুদ্দীন আল্-হাসানী, শাহ্জাদা আল্হাজ্ব হযরত সৈয়দ হাসনাইন-এ-মইনুদ্দীন আল্-হাসানী, হযরত সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ মাইজভাণ্ডারী ট্রাস্টের মহাসচিব এডভোকেট কাজী মহসীন চৌধুরী। হযরত বাবাভাণ্ডারী কেবলা (ক.)’র জীবনদর্শনের ওপর আলোচনায় অংশ নেন আন্জুমান কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি খলীফা অ্যাডভোকেট ওয়াজউদ্দীন মিয়া, আল্হাজ্ব কবির চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক খলীফা আল্হাজ্ব আলমগীর খান মাইজভাণ্ডারী, খলিফা আব্দুল মান্নান, মাওলানা মুফতী বাকী বিল্ল¬াহ আল-আযহারী, হযরত মাওলানা রুহুল আমিন ভূঁইয়া চাঁদপুরী, হযরত মাওলানা বাকের আনসারী, হযরত মাওলানা নঈমউদ্দিন, মাওলানা এইচ এম মাকসুদুর রহমান প্রমুখ। খোশরোজ শরিফ সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে নানাভাবে সহযোগিতাকারী ফটিকছড়ি উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ-আনসার, বিদ্যুৎ বিভাগ, বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সংস্থাসহ সংশি¬ষ্ট সকলের প্রতি আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা জানানো হয়।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post