গুইমারায় গৃহবধূ পুড়িয়ে মারার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদন্ডাদেশ

স্টাফ রিপোর্টার: গুইমারায় যৌতুকের জন্য আগুন দিয়ে গৃহবধূ সালমা আক্তারকে পুড়িয়ে মারার দায়ে অভিযুক্ত স্বামী মিজানুর রহমানকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন খাগড়াছড়ি আ

খাগড়াছড়িতে গাজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ি আটক
রামগড়ে আবার চালু হচ্ছে হিলটেক্টস ডিস্ট্রিলারিজ লিঃ
খাগড়াছড়ি ক্যান্টমেন্ট পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজে ‘সততা স্টোর’ উদ্বোধন

স্টাফ রিপোর্টার: গুইমারায় যৌতুকের জন্য আগুন দিয়ে গৃহবধূ সালমা আক্তারকে পুড়িয়ে মারার দায়ে অভিযুক্ত স্বামী মিজানুর রহমানকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন খাগড়াছড়ি আদালত। ১৫ অক্টোবর সোমবার বেলা সাড়ে ১২টায় খাগড়াছড়ির নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ ইসমাইল এ আদেশ দেন বলে জানা গেছে। রায় ঘোষণার সময় আদালতে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত মিজানুর রহমানসহ অন্যান্য আসামিরা উপস্থিত ছিলেন।

মৃত্যুর আগে নিহত সালমার জবানবন্দি ও ৬ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যর ভিত্তিতে আদালত অভিযুক্ত মিজানুর রহমান নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ ও ২০০৩ এর ১১ এর(ক) ধারায় দোষি সাব্যস্ত হওয়ায় মৃত্যুদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকার অর্থদণ্ড দেওয়া হয়। মামলার অন্য ৪ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় আদালত তাদের খালাস দেন।

মামলার বাদী ও সালমার ভাই মো. নুরুজ্জামান মামলার রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করে ন্যায় বিচার পেয়েছেন বলে দাবি করেন।

উল্লেখ্য ২০১৪ সালের ১৭ ডিসেম্বর গুইমারার সিন্দুকছড়িতে যৌতুকের দাবিতে গায়ে পেট্রোল ঢেলে গৃহবধূ সালামার গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয় স্বামী মিজানুর রহমান। দীর্ঘ ৫ মাস খাগড়াছড়ি ও চট্টগ্রামে চিকিৎসা নিয়ে দগ্ধের ক্ষতে আক্রান্ত হয়ে ২০১৫ সালের ২৯ মে রাতে খাগড়াছড়ির গুইমারার পৈত্রিক বাড়িতে মৃত্যুবরণ সালমা।