ইউপি নির্বাচনখাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদদীঘিনালানির্বাচন বিবিধপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

দীঘিনালায় একমাত্র নারী নৌকা প্রতীকের প্রার্থী মাহমুদা বেগম লাকী

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: আগামী ২৮নভেম্বর রোববার তৃতীয় ধাপে মহালছড়ি ও দীঘিনালা উপজেলার ৭টি ইউপিতে নির্বাচনের ভোট গ্রহণ। এরমধ্যে দীঘিনালার ইউপি নির্বাচনে এই প্রথমবারের মতো চেয়ারম্যান পদে মাহমুদা বেগম লাকী দলীয়ভাবে প্রথম নারী হিশেবে নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচনী মাঠে লড়ছেন। এ কারণে মেরুং ইউনিয়নে ভোটার ও সাধারণ মানুষের মধ্যে বাড়তি উৎসাহ দেখা দিয়েছে।
বেগম লাকী দীঘিনালা উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোসলেম উদ্দিন (মাস্টার)’র কন্যা। তিনিই জেলায় একমাত্র নারী চেয়ারম্যান প্রার্থী।
দীঘিনালা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিদ্যুৎ বরণ চাকমা বলেন, মেরুং ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নৌকার প্রার্থী হিসেবে মাহমুদা বেগম সহ ৮জনের নাম কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের কাছে পাঠানো হয়। মনোনয়ন বোর্ড মাহমুদা বেগমকে দলীয় মনোনয়ন দিয়েছেন।
এ বিষয়ে মাহমুদা বেগম বলেন, আমি দীর্ঘদিন যাবৎ আওয়ামী লীগের রাজনীতি করে আসছি। আমার পিতা এ ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান। রাজনৈতিকভাবে আমাকে মূল্যায়ণ করায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আমি কৃতজ্ঞ।
আমি আশাবাদী আমাদের ইউনিয়নের জনগন স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণের মাধ্যমে বিপুল ভোটে আমাকে নির্বাচিত করবেন।
মাহমুদা বেগম লাকী’র সাথে প্রতিদ্ধন্ধী প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (এম. এন. লারমা) সমর্থিত হেমাব্রত কার্বারী (আনারস)। হাতপাখা প্রতীক নিয়ে ইসলামী আন্দোলন মনোনীত মো. আশরাফুল আলম শেষ মুহুর্তে নির্বাচনী মাঠ থেকে গুটিয়ে নিয়েছেন।
দীঘিনালা উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহেনসা লতিফুল খায়ের জানান, নির্বাচন সুষ্ঠু করার জন্য আমরা সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছি। দীঘিনালার মেরুং ইউনিয়নে ২৯ হাজারের কাছাকাছি ভোটার রয়েছেন।

এদিকে ৪র্থ ধাপের নির্বাচনে লক্ষ্মীছড়ি ইউনিয়নে স্বত্রন্ত্র একমাত্র নারী চেয়ারম্যান প্রার্থী জয়া চাকমা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। আগামী ৭ ডিসেম্বর প্রতীক বরাদ্ধ ভোট হবে ২৬ ডিসেম্বর।