• June 24, 2024

ভূমিহীন ও অসহায় ১৭টি পরিবারকে ঘর দিয়েছে বিজিবি যামিনীপাড়া জোন

 ভূমিহীন ও অসহায় ১৭টি পরিবারকে ঘর দিয়েছে বিজিবি যামিনীপাড়া জোন
খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: বাঙালি জাতির গৌরবের স্বাধীনতার মাসে গৃহহীন, ভূমিহীন ও অসহায় ১৭টি পরিবারকে ঘর দিয়েছে খাগড়াছড়ির দুর্গম পাহাড়ে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত ২৩ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন যামিনীপাড়া জোন। শুধুমাত্র ঘর নয়, আসবাবপত্র, শৌচাগার সহ গৃহস্থলির যাবতীয় সরঞ্জাম দেয়া হয় পরিবারগুলোকে। বিজিবির এমন উদ্যোগে প্রশংসার জোয়ার বইছে এলাকায়। আগামীতে এ ধারা অব্যাহত থাকবে বলছেন সংশ্লিষ্টরা।
সরেজমিনে দেখা যায়, সত্তরোর্ধ্ব আছিয়া খাতুনের চোখে মুখে বাঁধভাঙা আনন্দের উচ্ছ্বাস। কয়দিন আগেও অন্যের বসত ভিটায় ভূমি ও গৃহহীন আছিয়ার ঠিকানা হলেও এখন তার নিজের ঘর হয়েছে। স্বাধীনতার মাসে আছিয়ার মতো ভূমি ও গৃহহীনদের ঘর উপহার দিয়েছে খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গার যামিনীপাড়া জোন, ২৩ বিজিবি। শুধু ঘর নয়, সাথে দেয়া হয়েছে আসবাবপত্র, নলকূপসহ গৃহস্থালির যাবতীয় সামগ্রী।
শুধু আছিয়া খাতুনি নয় যামিনীপাড়া জোনের আওতাধীন তবলছড়ি, বর্ণাল ও তাইদং ইউনিয়নের দূর্গম এলাকার ১৭টি পাহাড়ি বাঙ্গালী পরিবারকে দেয়া হয়েছে এ ঘর। আর্থিক ভাবে অস্বছল, প্রতিবন্ধী, আগুনে ক্ষতিগ্রস্ত ও ভূমিহীন পরিবার গুলাে  পেয়েছেন টিন ও কাঠের তৈরী ঘর গুলাে। সীমান্তের প্রত্যন্ত এলাকায় নিজে গিয়ে ঘর গুলাে হস্তান্তর করেন জোন অধিনায়ক নিজেই। এমন উপহারে খুশি সহায় সম্বলহীন পরিবারগুলাে। বিজিবি’র নিজস্ব অর্থায়নে হতদরিদ্র ও সুবিধা বঞ্চিতদের জন্য এমন উদ্যাগকে ইতিবাচক বলছেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা।
আর অর্পিত দায়িত্বের পাশাপাশি এ ধরণের আর্ত সামাজিক উনয়নমূলক কার্যক্রম অব্যাহত রাখার আশ্বাস দেন যামিনীপাড়া জােন (২৩ বিজিবি) অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল এ বি এম জাহিদুল করিম বলেন, সতেরটি ঘর নির্মাণে ব্যয় হয়েছে প্রায় ১২ লাখ টাকা। যামিনীপাড়া জোন (২৩ বিজিবি)র এ মহতি উদ্যোগ অব্যাহত থাকুক এমনটাই প্রত্যাশা স্থানীয়দের।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post