• June 23, 2024

গুইমারাতে যৌতুক মামলার আসামী গ্রেফতার

 গুইমারাতে যৌতুক মামলার আসামী গ্রেফতার
স্টাফ রিপোর্টার: খাগড়াছড়ির গুইমারার কালাপানি এলাকায় সুলতান মীরের ছেলে মোঃ সজিব মীর(২৫) যৌতুক চাওয়ার অপরাধে প্রেফেতার করেন।
মামলার সূত্রে জানাযায়, মানিকছড়ি উপজেলার তিনটহরী ইউনিয়নের বড়ডলু মুসলিমপাড়া এলাকার মোঃ মুসলিম মিয়ার মেয়ে  মমতাজ বেগম(২৫) এর সাথে দীর্ঘ ৪বছর পুর্বে পারিবারিক ভাবে বিবাহ হয়। বিয়ের পর থেকে মামলার বাদী মমতাজের বাবার থেকে সজিব মীর সিএনজি ক্রয় করার কথা বলে ১ এক্ষ টাকা, পরে আবারও মোটরসাইকেল কিনার জন্য ১ লক্ষ টাকা যৌতুন নেন। মমতাজএনজিও থেকে ১ লক্ষ টাকা ঋণ নিয়ে দিয়েও শান্তি আসলো না তার পরিবারে।
কিছুদিন পরে তাদের সংসারে একটি কণ্যা সন্তানের জন্ম হয়।
তাতে ক্ষান্ত হন নাই সজিব মীর, মমতাজকে শারিক, মানসিক ও যৌতুকের দাবীতে নির্যাতন করে আসছিল। এই ব্যাপারে দপায়  দপায় গ্রাম্য শালিশ বৈঠক হয়। কিন্তু তাতে কোন সুরাহ হয় নাই।
পরে নির্যাতিত মমতাজ বেগম বাদী হয়ে খাগড়াছড়ি আদালতে সিআর মামলা নং-৪৭১/২০২৩ ধারা-যৌতুক নিরোধ আইনের ৩ এর ধারা মোতাবেক মামলা করেন। আদালত সজিব মীরের নামে গ্রেফতার পরওয়ানা জারি করেন।
২২ আগস্ট সকাল খাগড়াছড়ি  জেলার পুলিশ সুপার মুক্তা ধর, এর দিকনির্দেশনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, রামগড় সার্কেল এবং অফিসার ইনচার্জ, গুইমারা থানা এর সার্বিক তত্ত্ববধায়নে এএসআই(নিঃ) মোঃ বেল্লাল হোসেন সঙ্গীয় অফিসার ও ফোর্সসহ গুইমারা থানা এলাকায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে সিআর মামলা নং-৪৭১/২০২৩ ধারা-যৌতুক নিরোধ আইনের ৩ এর ওয়ারেন্টভুক্ত আসামী সজীব মীর(২৫) পিতা- সুলতান মীর, কালাপানি, গুইমারা, খাগড়াছড়ি’কে গ্রেফতার করে।
২২ আগষ্ট মঙ্গলবার সকালে  গ্রেফতারকৃত আসামীকে পুলিশ স্কটের মাধ্যমে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরন করে গুইমারা থানা পুলিশ।

পাহাড়ের আলো

https://pahareralo.com

সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল। সর্বশেষ সংবাদ সবার আগে জানতে চোখ রাখুন পাহাড়ের আলোতে।

Related post