খাগড়াছড়িখাগড়াছড়ি সংবাদগুইমারাপাহাড়ের সংবাদশিরোনামস্লাইড নিউজ

গুইমারায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত: বাসের বেপরোয়া গতিই ছিল দুর্ঘটনার কারণ

স্টাফ রিপোর্টার: দেশ যখন নিরাপদ সড়কের দাবীতে সোচ্চার। দেশের শিশু কিশোররা যখন আমাদের চোখে বৃদ্ধাঙ্গুলি দিয়ে দেখিয়ে দিল ট্রাফিক ব্যবস্থা কেমন হওয়া উচিৎ। এসময়ের মধ্যেই চলছে একের পর এক প্রাণঘাতি সড়ক দুর্ঘটনা। কেড়ে নিচ্ছে শত শত তাজা প্রান। খাগড়াছড়ির গুইমারাতে এমনটাই ঘটল আবারও। ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা শ্যামলী পরিবহনের যাত্রীবাসী  নৈশ কোচের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষে গুইমারা বুদংপাড়া এলাকায় মোঃ আল আমিন নামের এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছে। ২৮আগষ্ট মঙ্গলবার সকালে এঘটনা ঘটে।

নিহত আল আমিন পটুয়াখালী জেলার দক্ষিন দিঘাই গ্রামে বাসিন্দা কেরামত আলীর পুত্র। সে ইবনে সিনা (হারবাল) ঔষধ কোম্পানীর এম.আর হিসেবে খাগড়াছড়িতে কর্মরত ছিল। খাগড়াছড়ি থেকে চট্টগ্রাম যাওয়ার পথে বুদংপাড়া এলাকায় শ্যামলী পরিবহনের সাথে মুখোমুখে সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায় সে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান,, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা শ্যামলী পরিবহনের একটি বাসের সাথে বিপরীত দিক থেকে আসা মোটরসাইকেলের মুখোমুখী সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। বেপরোয়া গতির বাসটি মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিলে মোটরসাইকেল আরোহী আল আমিন ঘটনাস্থলেই নিহত হয়। তার মোটরসাইকেলটি দুমড়ে মুছড়ে যায়। স্থানীয়রা মোঃ আল আমিনকে মাটিরাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন বলেন, ঘাতক বাসটি গুইমারা থানা পুলিশ আটক করেছে। নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য খাগড়াছড়ি আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।